রাজবাড়ীতে বন্যায় তলিয়ে আছে ২৮,৮৫৫ হেক্টর ফসলী জমি

  

পিএনএস, রাজবাড়ী প্রতিনিধি : পদ্মার পানি বৃদ্ধি অব্যহত রয়েছে রাজবাড়ীতে শুক্রবার সকাল ৮ টায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের তথ্য মতে গত ২৪ ঘন্টায় ১৪ সেন্টিমিটার পানি বেড়ে বিপদসীমার ১০৬ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

এতে দিনের পর দিন তলিয়ে যাচ্ছে হাজার হাজার বসত বাড়িসহ ফসলী জমি। শুক্রবার সকালে রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দেবগ্রাম ইউনিয়নের কাওয়াজানি গ্রামে গিয়ে দেখা যায় সেখানে তলিয়ে থাকা আউশ ধান কাটছেন কৃষকেরা।

রাজবাড়ী কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের তথ্য মতে, রাজবাড়ীতে এখন আউশ ৩০৬ হেক্টর আমন ৩৯৮ হেক্টর, শাক সবজি, ২৯ হেক্টর, মরিচ ৪ হেক্টর, অন্যান্য ২৬১১৮ হেক্টর জমির ফসল তলিয়ে আছে আর এতে ৪ হাজার ৪ শত ৮০ জন কৃষক ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে।

দেবগ্রাম ইউনিয়নের কাওয়াজানি গ্রামের কৃষক মোক্তার হোসেন মোল্লা জানান, এ বছরের প্রথম পর্যায়ের বন্যায় তার ৩৪ শতাংশ জমির মরিচ ক্ষেত নষ্ট হয়েছে। আর দ্বীতীয় পর্যায়ের বন্যায় পাচ বিঘা জমির আউশ ধান পাকার আগের পানিতে তলিয়ে গেছে আর কয়েক দিন গেলেই ধানগুলো পেকে যেত। কোন প্রকার উপায় না দেখে যতটুকু পাওয়া যায় সেই জন্য তিনি কাচা ধান কেটে বাড়িতে নিয়ে যাচ্ছেন।

কাওয়াজানি গ্রামের অপর এক কৃষক জহির শেখ জানান, এ বছরের বন্যায় রাজবাড়ীতে যেভানে ধানের ক্ষতি হয়েছে তাতে খাদ্য সংঙ্কট দেখা দিবে। সরকার যদি কৃষকের জন্য সহজ সর্তে লোনের ব্যবস্থা করে দেয় তবে কৃষক বাচবে, অন্যথায় না থেয়ে থাকতে হবে কৃষকদের।

রাজবাড়ীর জেলা প্রশাসক শওকত আলী জানান, এরই মধ্যে রাজবাড়ীর বন্যা কবলীত মানুষের জন্য ৪ লক্ষ ৯৩ হাজার টাকা এবং ২ শত ৮৩ মেট্টিক টন চাল দেওয়া হয়েছে। আরো ৫ লক্ষ টাকা ২ শত মেট্টিক টন চাল বরাদ্দ চেয়ে মন্ত্রনালয়ে পত্র প্রেরন করা হয়েছে।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল



 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech