ঘরে ভাড়াটে যুবতীর লাশ, মালিক পলাতক

  

পিএনএস ডেস্ক: রাজধানীর দারুসসালাম গুদারটেকের একটি বাড়ি থেকে অজ্ঞাতপরিচয় (২৮) এক যুবতীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে পুলিশের ধারণা। ঘটনার পর থেকেই বাড়ির মালিক পলাতক রয়েছে।

বুধবার (২১ ফেব্রুয়ারি) গভীর রাতে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ময়নাতদন্তের জন্য বৃহস্পতিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সকালে মরদেহটি শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

দারুসসালাম থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) এনামুল হক জানান, গুদারটেক এলাকায় একটি টিনশেড বাড়ি থেকে গলায় ওড়না পেঁচানো অবস্থায় ওই নারীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে, অজ্ঞাত ওই যুবতীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে।

প্রতিবেশীদের বরাত দিয়ে তিনি জানান, ৫ থেকে ৬ দিন আগে স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিয়ে টিনশেড ঘরটি ভাড়া নেয় দু’জন। মৃতের পড়নে ছাপা সেলোয়ার ও কামিজ ছিল। ঘরের মালিক ঘটনা পর থেকে পলাতক রয়েছে। পুলিশ তাকে আটকের চেষ্টা করছে।

পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech