কক্সবাজারে মেয়েকে ধর্ষণের দায়ে কারাগারে বাবা

  

পিএনএস ডেস্ক : কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলায় এক ব্যক্তির (৪৫) বিরুদ্ধে মেয়েকে (১২) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। গত বৃহস্পতিবার রাতে পুলিশ ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করে। আজ শুক্রবার বিকেলে আদালতে তাঁকে কারাগারে পাঠান।

অভিযুক্ত ব্যক্তি পেশায় একজন দিনমজুর। দুই ছেলে ও তিন মেয়ের জনক তিনি। অভিযুক্তের স্ত্রী বৃহস্পতিবার রাতে চকরিয়া থানায় ধর্ষণের মামলাটি করেন।

পুলিশ ও মামলার এজাহার থেকে জানা গেছে, ভুক্তভোগী কিশোরী স্থানীয় একটি প্রতিষ্ঠানের সপ্তম শ্রেণির শিক্ষার্থী। গত ২ জুলাই মেয়েটিকে তার বাবা ধর্ষণ করে। ওই সময় মেয়ে মাকে বিষয়টি জানায়। এ নিয়ে স্ত্রী স্বামীকে সতর্ক করেন।

কিন্তু ৫ জুলাই ওই ব্যক্তি আবারও একই কাজ করেন। এরপর ১১ জুলাই আবারও ধর্ষণের চেষ্টা করলে মেয়েটি আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। এতে বিষয়টি আশপাশের লোকজনের মধ্যে জানাজানি হয়ে যায়। পরে কিশোরীর মা বিষয়টি স্থানীয় ইউপি সদস্য ও চেয়ারম্যানকে জানান। পরে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতায় কিশোরীর মা স্বামীর বিরুদ্ধে এ মামলা করেন। রাতেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করে।

চকরিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. ইয়াসিন আরাফাত বলেন, ‘অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি ধর্ষণের বিষয়টি স্বীকার করেছেন। আজ বিকেল ৪টায় তাঁকে চকরিয়া জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে পাঠানো হলে আদালত তাঁকে কারাগারে পাঠান।

সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বলেন, ‘অভিযুক্ত ব্যক্তি আমাদের কাছে বিষয়টি স্বীকার করেছেন।’

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech