পাকুন্দিয়ায় স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যা!

  

পিএনএস ডেস্ক : কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়ায় লিমা আক্তার (১৫) নামের এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ বৃহস্পতিবার উপজেলার ফরাদী ইউনিয়নের গান্ধারচর গ্রাম থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়।

লিমা হোসেনপুর উপজেলার আড়াইবাড়িয়া গ্রামের মৃত আবুল হোসেনের মেয়ে এবং হোসেনপুর পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্রী।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, লিমা গত মঙ্গলবার পাকুন্দিয়া উপজেলার চর গান্ধারচর গ্রামে তার মামা মোস্তফা কামালের বাড়িতে বেড়াতে যায়। আজ বৃহস্পতিবার সকালে পুকুর পাড়ের একটি বড়ই গাছে গলায় ওড়না পেচানো ঝুলন্ত অবস্থায় লিমার লাশ পাওয়া যায়।

ওই গ্রামের খুরশিদের ছেলে জায়েদ ও রুবেলের ছেলে পলাশের সঙ্গে আগে থেকেই পরিচয় ছিল লিমার। গতকাল বুধবার রাতে মোস্তফা কামালের বাড়ির পুকুরপাড়ে ওই দুজনকে দেখেছেন বাড়ির লোকজন। ঘটনার পর থেকে জায়েদ ও রুবেল পলাতক রয়েছে। লিমার পরিবারের লোকদের ধারণা, তাকে ধর্ষণের পর হত্যা করে লাশ গাছে ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে।

পাকুন্দিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শফিকুল ইসলাম জানান, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech