ক্রেডিট কার্ড নীতিমালায় পরিবর্তন আসছে

  

পিএনএস ডেস্ক:বাস্তবায়ন করার আগেই পরিবর্তনের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে ক্রেডিট কার্ড নীতিমালায়। শীর্ষ ব্যাংকগুলোর দাবির প্রেক্ষিতে এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। সোমবার ব্যাংকগুলোর সঙ্গে আয়োজিত সভায় এমনই ইঙ্গিত দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

গত ১১ মে ক্রেডিট কার্ড সেবাসংক্রান্ত নীতিমালা জারি করে বাংলাদেশ ব্যাংক। এরপরই ব্যাংকগুলো নীতিমালাটি পর্যালোচনার দাবি জানায়। এ নিয়ে ব্যাংকগুলোর পক্ষ থেকে জানানো হয়, নীতিমালা অনুযায়ী কার্ডে সুদ হার হবে ভোক্তা ঋণের চেয়ে ৫ শতাংশ বেশি। অর্থাৎ সুদের হার হবে ১৫-১৭ শতাংশ। এ নীতিমালা বাস্তবায়িত হলে কার্ড ব্যবসা গুটিয়ে ফেলতে হবে। এতে ব্যাংকগুলোর কয়েক শ কোটি টাকার বিনিয়োগ আটকা পড়বে। নগদ টাকার লেনদেনবিহীন সমাজে যাওয়ার যে উদ্যোগ ছিল, তা থমকে যাবে।

ব্যাংকগুলো জানায়, ক্রেডিট কার্ডে তহবিল ব্যয় ৫ শতাংশ, সাধারণ সঞ্চিতি ৫ শতাংশ, মন্দ ঋণ ব্যয় ৪ শতাংশ ও অন্যান্য খরচ ৯ শতাংশ। অর্থাৎ কার্ড ব্যবসায় কমপক্ষে সুদের হার ২৩ শতাংশ। এজন্য ব্যাংকগুলো ক্রেডিট কার্ডে সাধারণ সঞ্চিতি ক্ষুদ্র ও মাঝারি ঋণের মতো দশমিক ২৫ শতাংশ রাখার সুযোগ চেয়েছে। এ ছাড়া ভোক্তা ঋণের পরিবর্তে সর্বোচ্চ সুদের চেয়ে ৫ শতাংশ বেশি হবে ক্রেডিট কার্ডের সুদের হার। বাংলাদেশ ব্যাংক তাতে ইতিবাচক মনোভাব দেখিয়েছে বলে জানা গেছে।

সভায় নীতিমালাটি ২০১৮ সালের জানুয়ারি থেকে বাস্তবায়নের দাবি জানানো হয়। ব্যাংকগুলো জানায়, চলতি বছরে গ্রাহকদের সেবা দিতে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি রয়েছে। এ কারণে নীতিমালাটি এখনই বাস্তবায়ন সম্ভব নয়।


পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech