শাকিবকে নিয়ে ছবি নয়; বললেন খোকন

  


পিএনএস ডেস্ক : চিত্রনায়ক শাকিব খানকে নিয়ে এ পর্যন্ত ২২টি চলচ্চিত্র নির্মাণ করেছেন জনপ্রিয় নির্মাতা বদিউল আলম খোকন। সর্বশেষ ২০১৫ সালে পরিচালনায় ‘রাজা বাবু’ ছবিতে অভিনয় করেছিলেন ঢালিউডের শীর্ষ নায়ক শাকিব।

তবে শাকিবকে নিয়ে আর কখনোই চলচ্চিত্র বানাবেন না বলে ঘোষণা দিলেন বদিউল আলম খোকন। তিনি নিজেই এই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন গণমাধ্যমে।

খোকন বলেন, ‘শাকিব খান বদলে গেছে। ও তার অতীত ভুলে গেছে। এখন সে বাংলাদেশের তুলনায় ভারতের ছবিকে বেশি প্রাধান্য দিচ্ছে। নানা অনুষ্ঠান, আড্ডায় শাকিব দেশের ইন্ডাস্ট্রি, কলাকুশলীদের হেয় করে কথা বলে। তার অনেক কথা কানে এসে লেগেছে তীরের মতো। যে ইন্ডাস্ট্রি শাকিবকে তৈরি করেছে সেই ইন্ডাস্ট্রি নিয়েই তার উল্টা পাল্টা বক্তব্য মেনে নেয়া যায় না।’

তিনি আরো বলেন, ‘শাকিবের মতে বাংলাদেশের নাকি কোনো ভালো কলাকুশলীই নেই!’

বদিউল আলম খোকন দাবি করেন তার ‘প্রিয়া আমার প্রিয়া’ ছবিতে অভিনয়ের মাধ্যমেই ঢাকাই সিনেমায় নিজের শক্ত অবস্থান তৈরি করেছিলেন শাকিব। এই ছবির আগে ২০০৮ সাল পর্যন্ত কে চিনতো শাকিবকে? সবাই তাকে সাপোর্টিং হিরো হিসেবেই চিনতো। আর শাকিবের উত্থানের পেছনে সোহানুর রহমান সোহান, এফ আই মানিক, পি এ কাজলের মতো গুণী র্নিমাতারা অনেক অবদান রেখেছেন। সে এখানকার টেকনিশিয়ানদের জন্য শাকিব খান হেয় গুলশান-বনানীতে গাড়ি বাড়ি করেছে। আর আজকে তাদের সমালোচনা করে বলে ভারতের সবকিছুই বেশি ভাল। সে সবার সঙ্গে রাজা-বাদশাহ’র মতো আচরণ করে। সিনিয়ররা এইসব দেখে ব্যাথিত হন। নতুনরা শাকিবের কাছে অহংকার ছাড়া আর কী শিখবে? কী শেখাতে পারে সে? অথচ এমনটা প্রত্যাশা ছিলো না।

খোকন বলেন, ‘শাকিব খান বাংলাদেশের শীর্ষ নায়ক। সে শিল্পী সমিতির সভাপতিও। তার অনেক দায়িত্ব থাকে ইন্ডাস্ট্রি নিয়ে। কিন্তু সে কোনো নিয়ম নীতি না মেনে ভারতের ছবির নায়ক হচ্ছে। সেইসব ছবি বাংলাদেশে নিয়ে আসছে চোরাচালানের মতো। সে ইচ্ছে করলেই এইসব ছবিতে বাংলাদেশের টেকনিশিয়ানদের কাজ করার সুযোগ দিতে পারে, অন্যান্য কলাকুশলীদের কাজের ব্যবস্থা করতে পারে। কিন্তু সে তা করছে না। মান্না ভাই যদি থাকতেন আজকের এই দুর্দিনে তিনি অনেক কিছুই করার চেষ্টা করতেন। আর শাকিব কী করছে? নিজের স্বার্থ দেখে ভারতের ছবির এজেন্ট হয়ে গেছে। সে বেশি স্মার্ট হতে গিয়ে নিজের জন্ম, পরিচয় ভুলতে বসেছে। একের পর এক ঘটনা ঘটিয়ে ইন্ডাস্ট্রিকে অস্থির করছে। কেন জানি মনে হয়, শাকিবকে এই দেশের মানুষ ছুঁড়ে ফেলবে সেইদিন খুব কাছে চলে এসেছে। শাকিবের এখনো অনেক কিছু ভাবা উচিত। তার কাছে আমাদের চলচ্চিত্রের অনেক ঋণ জমে আছে।’

অনেকেই মনে করে শাকিব ছাড়া ইন্ডাস্ট্রি চলে না। এটা খুবই ভুল ধারণা। নায়ক তৈরি করে ইন্ডাস্ট্রি, পরিচালকেরা। নায়ক কখনো ইন্ডাস্ট্রি-পরিচালক তৈরি করতে পারে না। এমন ইতিহাস নেই। তাই আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমার আগামী ছবিগুলোতে নতুনদের নিয়ে কাজ করবো।’

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ২০১৭ সালে মাহিয়া মাহিকে নিয়ে নতুন সিনেমার কাজ শুরু করার পরিকল্পনার রয়েছে এই নির্মাতার।

এদিকে বতর্মানে তিনি ‘হারজিৎ’ ঘিরে ব্যস্ত সময় পারছেন। সিনেমাটির প্রধান চরিত্রগুলোতে অভিনয় করেছেন ওমর সানি, মৌসুমী, সজল ও মাহিয়া মাহি।

পিএনএস/হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech