সালমান শাহ হত্যা : এবার ভাইরাল রিজভীর সেই জবানবন্দী

  

পিএনএস ডেস্ক : সালমান শাহ হত্যা মামলার সাত নম্বর আসামি আমেরিকা প্রবাসী রুবির ভাইরাল হওয়া একাধিক ভিডিওবার্তার পর ইস্যুটি নিয়ে আলোচনা যেন থামতেই চাইছে না। দীর্ঘ ২১ বছর ধরে যে ইস্যুটির কোনো সুরাহা হয়নি, বারবার সে ইস্যুই জায়গা করে নিচ্ছে আলোচনায়।

রুবির ভিডিওবার্তার পর সালমান হত্যা মামলার আরেক আসামি ঢালিউডের আলোচিত খল অভিনেতা ডনের সঙ্গে এক নারীর ছবি ভাইরাল হয়। বলা হয় ওই নারী সালমান শাহর স্ত্রী সামিরা। পরে অবশ্য সামিরা দাবি করেন, ছবিটি তার নয়। এক অভিনেত্রীর।

সালমান হত্যার ঘটনায় সংগ্রহ করা বিভিন্ন আলামতও এখন নেটদুনিয়ায় ভাইরাল। সালমানকে যে সিলিং ফ্যানে ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া গিয়েছিল সেটির ছবি, ফাঁসির দড়ি ও অন্যান্য আলামতের ছবিও ভাইরাল হয়েছে। আলামতের পর এবার ভাইরাল হয়েছে সালমান হত্যা মামলার আরেক আসামি রিজভীর জবানবন্দী।

১৯৯৭ সালের ২২ জুলাই রিজভী স্বেচ্ছায় ১৬৪ ধারায় আদালতে জবানবন্দি দেন। রেকর্ড করা সেই জবানবন্দীতে রিজভী বলেন, সালমানকে ঘুমাতে দেখে তার ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে, ফারুক পকেট থেকে ক্লোরোফোমের শিশি বের করে এবং সামিরা তা রুমালে দিয়ে সালমানের নাকে চেপে ধরে। ধস্তাধস্তির এক পর্যায়ে মামলার তিন নম্বর আসামি আজিজ মোহাম্মদ ভাই এসে সালমানের পা বাঁধে এবং খালি ইনজেকশন পুশ করে। এতে সামিরার মা ও সামিরা সহায়তা করে। পরে ড্রেসিং রুমে থাকা মই নিয়ে এসে, ডনের সাথে আগে থেকেই নিয়ে আসা প্লাস্টিকের দড়ি আজিজ মোহাম্মদ ভাই সিলিং ফ্যানের সাথে ঝোলায়।

সালমানকে হত্যা করতে সামিরার মা লাতিফা হক ১২ লাখ টাকার চুক্তি করেন ডন, ডেভিড, ফারুক, জাভেদের সঙ্গে। চুক্তিতে উল্লেখ ছিল, সালমানকে শেষ করতে কাজের আগে ৬ লাখ ও কাজের পরে ৬ লাখ দেয়া হবে।

পিএনএস/জে এ /মোহন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech