ট্রাম্প একজন ভদ্রলোক!

  

পিএনএস ডেস্ক: এক সপ্তাহে নয়জন জনপ্রিয় নারী ট্রাম্পের বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ তুলেছেন।এই ঘটনায় ট্রাম্পের স্ত্রী মেলানিয়া ট্রাম্প বলেছেন, যেসব নারীরা ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলেছেন তাদের সবার দাবি মিথ্যা। সিএনএন চ্যানেলের উপস্থাপক অ্যান্ডারসন কুপারের একটি অনুষ্ঠানে সাক্ষাৎকার দিতে এসে তিনি এসব কথা বলেন। খবর বিবিসির

২০০৫ সালে নারী সম্পর্কে ট্রাম্পের অশ্লীল মন্তব্যের ভিডিও ফাঁস হওয়ার ব্যাপারে তিনি বলেন, ট্রাম্প যা বলেছেন তা অগ্রহণযোগ্য। তবে তিনি যেই ট্রাম্পকে চেনেন তিনি এরকম নন।

তিনি বলেন, সেই ভিডিওতে টিভি উপস্থাপক বিলি বুশের সঙ্গে নারীদেরকে নিয়ে অশ্লীল কথা বলায় ট্রাম্প ক্ষমা চেয়েছেন। এনবিসির সাবেক উপস্থাপক বিলি বুশই ট্রাম্পকে অশ্লীল কথা বলতে প্ররোচিত করেছেন বলে মন্তব্য করেন স্ত্রী মেলানিয়া।

এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে বেশ কয়েকজন রিপাবলিকান নেতার সমর্থন হারিয়েছেন রিপাবলিকান দলের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী ডোনাল্ড টাম্প।

মেলানিয়া আরো বলেন, আমি আমার স্বামীকে চিনি। সে নারীদের সম্মান করে। ট্রাম্প আত্মপক্ষ সমর্থন করছে কারণ যৌন নিগ্রহের অভিযোগগুলো মিথ্যা। সে কখনওই এমন কোনো কাজ করেনি। প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিসেবে তার অবস্থান নড়বড়ে করে দিতেই এই সব মানহানিকর সাজানো অভিযোগ সামনে আনছে হিলারি ক্লিনটনের প্রচারণা শিবির।

এরপর তিনি মিডিয়াকে ইঙ্গিত করে বলেন, যা কিছু তারা ট্রাম্পের বিরুদ্ধে পেয়েছে তারা কি কখনও সে সব তথ্য যাচাই করেছে?

তিনি আরও বলেছেন, ট্রাম্প কখনওই নারীদের সঙ্গে অশোভন আচরণ করেননি বরং নারীরাই ট্রাম্পকে অযাচিতভাবে নিজেদের ফোন নম্বর দিতে চাইতো।

নির্বাচনের আর মাত্র তিন সপ্তাহ বাকি আছে। ভোটের আগেই নারীঘটিত এসব কেলেঙ্গারিতে ফেঁসে বেশ নাজুক অবস্থানে আছেন ট্রাম্প।

পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech