কবর থেকে তোলা হল নববধূর দেহ

  

পিএনএস ডেস্ক : ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে তদন্তের কারণে কবর থেকে তোলা হল গৃহবধূর দেহ৷ চাঞ্চল্যকর এই ঘটনা ঘটেছে ভারতে হাওড়ার ডোমজুড়ের কেশবপুর আমতলায়৷

মঙ্গলবার রাতে সারিফা বেগমের(১৯) অস্বাভাবিক মৃত্যু নিয়ে মৃতার পরিবারের পক্ষ থেকে বুধবার শ্বশুরবাড়ির বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল৷

আদালতের নির্দেশেই বৃহস্পতিবার সকালে ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে ফের ওই দেহ কবর থেকে তোলা হয়৷মৃতার বাপের বাড়ির দাবি তাঁরা ঘনিষ্ঠ মহলে জানতে পেরেছিলেন তাঁদের মেয়ের উপর শারীরিক নির্যাতন করা হয়েছিল৷

কবরের আগে তাঁর শরীরে আঘাতের চিহ্ন দেখেছিলেন অনেকে৷ একথা শোনার পর ডোমজুড় থানায় অভিযোগ জানানো হয়৷ স্বামী শেখ রাকিবুল(২৪) সহ মৃতার শ্বশুর, দেওর সহ শ্বশুরবাড়ির লোকেদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে৷ যদিও ঘটনার পর থেকে তাঁরা পলাতক৷ পেশায় দর্জির কাজ করেন রাকিবুল৷

তাঁর সঙ্গে বিয়ে হয়েছিল হাওড়ার জগৎবল্লভপুরের দক্ষিণ সন্তোষপুরের মিদ্দেপাড়ার বাসিন্দা শরিফ বেগমের৷মঙ্গলবার রাতে ওই গৃহবধূর ঝুলন্ত দেহ শ্বশুরবাড়ি থেকে উদ্ধার হয়েছিল৷ পুলিশ জানায়, পরশু ২১ তারিখ রাতে ঘটে ওই ঘটনা৷

২২ তারিখ বুধবার সকালে কবর দেওয়া হয়৷ বিকেলে শ্বশুরবাড়ির ৭ জনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ হয়৷ বৃহস্পতিবার সকালে কবর থেকে দেহ তোলা হয় ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে৷ ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে৷

পিএনএস/জে এ /মোহন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech