জাতিসঙ্ঘে জেরুসালেম প্রস্তাব, চাপে ট্রাম্প - আন্তর্জাতিক - Premier News Syndicate Limited (PNS)

জাতিসঙ্ঘে জেরুসালেম প্রস্তাব, চাপে ট্রাম্প

  


পিএনএস ডেস্ক: গত ৯ ডিসেম্বর জেরুসালেম-প্রসঙ্গে জরুরি বৈঠক ডেকেছিল জাতিসঙ্ঘ নিরাপত্তা পরিষদ। ট্রাম্পের জেরুসালেমকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণা এবং তেল আবিব থেকে মার্কিন দূতাবাস সেখানে সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্তকে সে দিন সমর্থন জানায়নি কোনো সদস্য দেশই। শনিবার ফের খসড়া প্রস্তাব দিয়েছে নিরাপত্তা পরিষদ। মিসরের পক্ষ থেকে পেশ করা এক পাতার খসড়া প্রস্তাবে অনুগ্রহ করা হয়েছে— ‘জেরুসালেম সম্পর্কিত কোনো সিদ্ধান্তকেই আইনি স্বীকৃতি দেয়া হবে না এবং অবশ্যই বাতিল বলে গণ্য করা হবে।’

শনিবার ১৫ সদস্যের পরিষদের প্রত্যেক দেশকে দেয়া হয়েছে ওই প্রস্তাব। খসড়াটি দেখানো হয়েছে সংবাদমাধ্যমকেও। তবে ওই প্রস্তাবের কোথাও আমেরিকা বা ডোনাল্ড ট্রাম্পের নাম উল্লেখ করা হয়নি। কূটনীতিকরা জানাচ্ছেন, এই পদক্ষেপে তাদের পূর্ণ সমর্থন রয়েছে। কিন্তু ওয়াশিংটন ভেটো দিতে পারে। এ সপ্তাহের গোড়ায় ভোট হতে পারে। প্রস্তাব পাশ হতে হলে তার সমর্থনে অন্তত ৯টি ভোট চাই। যে হেতু আমেরিকার ভেটো দেয়ার আশঙ্কা প্রবল, তাই আগেই জানিয়ে দেয়া হয়েছে, আমেরিকা, ফ্রান্স, ব্রিটেন, রাশিয়া, চীনের ভেটো গৃহীত হবে না।

গত ৬ ডিসেম্বর ট্রাম্প ঘোষণা করেন, জেরুসালেমকে ইসরাইলের রাজধানীর স্বীকৃতি দিচ্ছে আমেরিকা। ক্ষোভে জ্বলতে থাকে ফিলিস্তিন। উত্তেজনা ছড়ায় আরব দেশগুলোতেও। এর পরেই তারা একসঙ্গে জাতিসঙ্ঘের দ্বারস্থ হয়েছিল। এই প্রস্তাব পাশ হলে, জেরুসালেম প্রসঙ্গে নতুন করে কোণঠাসা হয়ে পড়বে ওয়াশিংটন। জাতিসঙ্ঘের মার্কিন প্রতিনিধিরা অবশ্য এ নিয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি। জাতিসঙ্ঘের মার্কিন দূত নিকি হ্যালি এ দিনও প্রেসিডেন্টের সমর্থনে বলে গেছেন, ‘‘যেটা ঠিক, সেটাই হবে।’’ ইসরাইলের প্রতিনিধি ড্যানি ড্যানন একটি বিবৃতি দিয়ে জানিয়েছেন, ‘‘জেরুসালেম যে ইসরাইলেরই রাজধানী, কোনো ভোট বা বিতর্কে সেই সত্যিটা বদলে যাবে না।’’

ফিলিস্তিনি চায় পূর্ব জেরুসালেমই হোক তাদের রাজধানী। আর জেরুসালেম ভাগ হয়ে যাক, ইসরাইল সেটা চায় না। অভিযোগ, ১৯৮০ সালে শহরটি জবরদখল করেছিল ইসরাইল। নিজেদের রাজধানী ঘোষণা করেছিল। দুনিয়া অবশ্য কোনো দিনই ইসরাইল দাবিকে স্বীকৃতি দেয়নি। মুসলিম, ইহুদি ও খ্রিস্টানদের পবিত্রভূমিকে ঘিরে বিতর্ক রয়েই গেছে।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech