আন্তর্জাতিক বাজারে তেলের মূল্যবৃদ্ধি, ইরানের ওপর নিষেধাজ্ঞার আশঙ্কায়

  


পিএনএস ডেস্ক: আন্তর্জাতিক বাজারে অপরিশোধিত তেলের দাম ব্যারেল প্রতি ৮০ ডলারে গিয়ে ঠেকেছে। ২০১৪ সালের নভেম্বরের পর এটাই তেলের সর্বোচ্চ দর। ইরানের ওপর অর্থনৈতিক অবরোধ আরোপ করা হতে পারে এমন আশঙ্কা থেকেই মূলত তেলের মূল্য বৃদ্ধির এই ঘটনা ঘটেছে। তেলের আন্তর্জাতিক বাজারে ইতিমধ্যেই যোগান চাহিদার তুলনায় কম। তার ওপর নতুন করে নিষেধাজ্ঞার কবলে পড়লে ইরানে উৎপাদিত তেলও আন্তর্জাতিক বাজারে যেতে পারবে না। ইতিমধ্যে আমেরিকার নিষেধাজ্ঞা আরোপের আশঙ্কায় ফ্রান্সের তেল কোম্পানি টোটাল ইরানের সঙ্গে কয়েকশো কোটি ডলারের গ্যাস চুক্তি বাতিল করে দেয়ার কথা জানিয়েছে। তাদের বক্তব্য, আমেরিকার নিষেধাজ্ঞা থেকে যদি সুরক্ষা পাওয়া না যায়, তাহলে তারা ইরানের সঙ্গে চুক্তিতে যাবে না।

অপরিশোধিত তেলের চাহিদা বিশাল পরিমাণে বাড়ায় এবং তেল রপ্তানি করা দেশগুলো যোগান কমিয়ে দেওয়ায় গত কয়েক মাস ধরে বাড়ছে তেলের দাম। আগামী মাসগুলিতে এই চাহিদা আরও বাড়বে। তাছাড়া এশিয়াতে অপরিশোধিত তেলের চাহিদা এখন তুঙ্গে। অনেক ব্যাঙ্ক তেলের মূল্য ভবিষ্যতে আরও বৃদ্ধি পাওয়ার কথা জানিয়েছে তাদের প্রতিবেদনে।

একদিকে চাহিদা বেড়ে যাওয়া ও অন্যদিকে যোগান কমে যাওয়ার এই আশঙ্কার মধ্যে আমেরিকার তেল উত্তোলনের পরিমাণ বৃদ্ধি কোনো প্রভাব রাখতে পারবে কি না সে বিষয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে গোল্ডম্যান স্যাক্সের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, ইরান, ভেনেজুয়েলা ও অ্যাঙ্গোলা থেকে বিশ্ব বাজারে পাঠানো তেলের যোগান যদি কমে যায় তাহলে তার ঘাটতি আমেরিকার তেল উৎপাদন বৃদ্ধি পেলেও পূরণ হবে না।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech