ফিলিপাইনে টাইফুনের আঘাতে নিহত ১৪

  

পিএনএস ডেস্ক :ফিলিপাইনে ব্যাপক ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়েছে সুপার টাইফুন ‘ম্যাংকুত’। এতে অন্তত ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। লুজনের মূল দ্বীপ লণ্ডভণ্ডের পর ঝড়টি ধীরে ধীরে পশ্চিম দিকে চীনের পথে অগ্রসর হচ্ছে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এ খবর প্রকাশ করেছে।

শনিবার (১৫ সেপ্টেম্বর) স্থানীয় সময় রাত ২টা ৩০ মিনিটে উত্তর ফিলিপাইনে প্রথম আঘাত হানে মাংকুত। যা সর্বোচ্চ ‘ক্যাটাগরি ৫’ ঝড়ে রূপান্তরিত হয়ে আঘাত হেনেছে।

এ সুপার টাইফুনকে চলতি বছর বিশ্বজুড়ে আঘাত হানা সবচেয়ে শক্তিশালী ঝড় হিসেবে অ্যাখ্যা দিয়েছে বিশ্ব আবহাওয়া সংস্থা। বর্তমানে এটি চীনের পশ্চিমাঞ্চলের দিকে অগ্রসর হচ্ছে।

মার্কিন নৌ-বাহিনীর যৌথ ঘূর্ণিঝড় সতর্কতা বিষয়ক কেন্দ্র জানিয়েছে, বর্তমানে ঝড়টি ঘণ্টায় ২০৫ কিলোমিটার গতিবেগে বাতাস নিয়ে এগুচ্ছে। পাশাপাশি বাতাসের ঝাপটা সৃষ্টি করছে ঘণ্টায় ২৫৫ কিলোমিটার গতিবেগে। পরবর্তীতে ঘণ্টা প্রতি বাতাসের গতি ২৬৮ ও বাতাসের ঝাপটার গতি ৩২৪ কিলোমিটারে পৌঁছাতে পারে।

সরকারি আবহাওয়াবিদ রেনে প্যাসিয়েন্তে জানিয়েছেন, ঝড়টি এখন গাড়ি উড়িয়ে নিতে পারে। আপনি দাড়িয়ে থাকতে পারবেন না, এমনকি হামাগুড়ি দিয়েও বাতাসের বিরুদ্ধে যেতে পারবেন না।

এদিকে, ঝড়ের প্রভাবে ফিলিপাইনের উপকূলের লোকজনকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে, অন্তত ২৫টি প্রদেশে ঝড়ের সর্তকতা জারি করা হয়েছে। নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে পর্যটকদের ভ্রমণ।

এরইমধ্যে দেশটির প্রেসিডেন্ট দুদার্তে সংশ্লিষ্টদের নিয়ে জরুরি সভা করে জানমাল রক্ষায় প্রয়োজনীয় নির্দেশ দিয়েছেন। প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুর্তাতে নিজেও পূর্ব নির্ধারিত সফর বাতিল করেছেন।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech