জাতিসঙ্ঘে হাসির খোরাক হলেন ট্রাম্প

  


পিএনএস ডেস্ক: আন্তর্জাতিক মঞ্চে রাষ্ট্রনেতাদের সামনাসামনি হয়ে হাসির খোরাক হলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। মঙ্গলবার জাতিসঙ্ঘ সভায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট ' আমেরিকা ফার্স্ট' প্রসঙ্গ তুলে বক্তব্য রাখছিলেন। পাশাপাশি প্রশংসা করছিলেন তার প্রশাসনের। আর সেই প্রসঙ্গ উঠতেই হাসির রোল ওঠে সভাকক্ষে। খানিকটা অপদস্ত হয়েও পরিস্থিতি সামলে নেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

সভায় দেরিতে এসে পৌঁছন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এরপরই নিজের ভাষণ শুরু করেন ট্রাম্প। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে কার্যকরি প্রশাসন হিসাবে তুলে ধরেন তার সরকারের কাজকে। প্রশংসা করেন তার সেনাবাহিনীর। পাশাপাশি মার্কিন মুলুকে তার প্রশাসন যা কাজ করেছে, তা মার্কিন ইতিহাসে কেউ করেনি বলে দাবি করেন তিনি। আর ট্রাম্পের এই বক্তব্যই সভাকক্ষে হাসহাসি শুরু হয়ে যায়।

বিভিন্ন রাষ্ট্রনেতাদের কটাক্ষের হাসি হাসতে দেখে ট্রাম্প বলেন, 'এটা আশা করিনি, তবে ঠিক আছে..'। এভাবেই পরিস্থিতি সামাল দেন তিনি।

উল্লেখ্য, বহুদিন ধরেই মার্কিন প্রেসিডেন্টের জাতীয়তাবাদী নীতি নিয়ে সমালোচনার ঝড় ওঠে আন্তর্জাতিক মহলে। পাশাপাশি, 'প্যারিস ক্লাইমেট অ্যাকর্ড', 'নর্থ আটলান্টিক ট্রিটি' নিয়ে ট্রাম্পের নেতিবাচক মনোভাবেরও বেশ সমালোচনা করে আন্তার্জাতিক রাজনৈতিকমহল। তারপর ফের একবার নতুন করে জাতিসঙ্ঘের সভায় ট্রাম্পের বক্তৃতা ঘিরে এই নতুন পরিস্থিতি, নতুন করে মার্কিন প্রেসিডেন্টকে শিরোনামে নিয়ে আল।

পিএনএস/মো. শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech