মেয়েকে পুড়িয়ে মারল বাবা!

  

পিএনএস ডেস্ক : কয়েক দিন আগে মদপান করে ঝামেলায় জড়ানো বাবাকে কয়েকজন মারতে দেখে বাঁচাতে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন ছোট মেয়ে।আর নেশার টাকা দিতে না চাওয়ায় সে মেয়েকেই পুড়িয়ে মারার অভিযোগে উঠেছে বাবা শঙ্কর ক্ষেত্রপালের বিরুদ্ধে।

ভারতের মেমারির কলেজ-মাঠপাড়ার মঙ্গলবার ঘটে এই ঘটনা। পরের দিন বুধবার অভিযুক্ত বাবা শঙ্কর ক্ষেত্রপালকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

প্রতিবেশীরা জানান, মঙ্গলবার দুপুরে ভাত খাওয়ার সময় নেশা করার জন্য টাকা চান শঙ্কর। সরস্বতী দিতে না চাইলে ভাতের থালা ছুড়ে ফেলেন তিনি। এসময় মদের বোতল দিয়ে মেয়ের মাথায় আঘাত করেন শঙ্কর। কাঁদতে কাঁদতে ঘরে গিয়ে কাঁথা চাপা দিয়ে শুয়ে পড়েন সরস্বতী। এরপর শঙ্কর ঘরে ঢুকে খাটের নিচে বোতলে রাখা কেরোসিন মেয়ের গায়ে ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেন। পরে দগ্ধ অবস্থায় তাকে হাসপাতালে নেয়া হলে তার মৃত্যু হয়।

স্থানীয়দের দাবি, স্ত্রী, মেয়ের পরিশ্রমের টাকা কেড়ে নিয়ে নেশায় করতেন শঙ্কর। সূত্র: আনন্দবাজার

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech