ক্যাফে টয়লেটে গোপন ক্যামেরা! ভয়ে-লজ্জায় যা করলেন মহিলা

  

পিএনএস ডেস্ক :এক ভদ্র মহিলা ক্যাফেতে খাবার খেতে গিয়ে এক ফাঁকে টয়লেটে গিয়েছিলেন। সেখানে গিয়েই চমকে গেলেন। মাথার উপর গোপন একটি ক্যামেরা দেখতে পান। আর এতেই ভয়ে-লজ্জায় কুঁকড়ে যান তিনি।

ভারতের পুণের হিঞ্জাওয়াড়ি অ়ঞ্চলের বি-হাইভ ক্যাফেতে (Cafe BeHive) এ ঘটনা ঘটেছে। ওই ক্যাফের টয়লেটেই লাগানো ছিলো একটি গোপন ক্যামেরা।

ওই মহিলা গোপন ক্যামেরা দেখার সঙ্গে সঙ্গেই এর কিছু ছবি মোবাইলে তুলেন। পরে সেই ছবি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রাম স্টোরি হিসেবে পোস্ট করেন। কিছু সময়ের মধ্যে সেই ছবি ভাইরাল হয়।

এরপরই ক্যাফে মালিকের নোংরা রুচিকে ধিক্কার জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে একের পর এক মন্তব্য আছড়ে পড়তে থাকে। আতঙ্কিত বহু স্থানীয় মানুষ তড়িঘড়ি খবর দেন পুণে পুলিশ থানাতেও। প্রশাসনের পক্ষ থেকে এরপরেই বিষয়টি দেখার আশ্বাস দেয়া হয়।

ওই মহিলার দাবি, ক্যাফের কর্তৃপক্ষ একথা জানাতেই নাকি বাকি অতিথিদের বাইরে দাঁড় করিয়ে রেখে চুপচাপ ক্যামেরা সরিয়ে নেয়। একবারের জন্যেও তার কাছে ক্ষমা চাননি। উল্টে মুখ বন্ধ রাখতে নাকি সবাইকে ঘুষের প্রলোভন দেখানো হয়।

এদিকে তদন্তের আশ্বাস দেয়ার পাশাপাশি যদিও লিখিত অভিযোগ দায়েরের কথা জানানো হয়েছে পুণে প্রশাসনের পক্ষ থেকে।

স্ক্রিনশট সোশ্যালে ভাইরাল হতেই অভিনেত্রী রিচা চাড্ডা সেই ছবি রিটুইট করে তার টুইটে। সঙ্গে ট্যাগ করেন পুণে প্রশাসনকে। তিনি এতে বলেন, এবার প্রকৃত দোষীর শাস্তি হোক।

এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই ক্যাফের জোমাটো পেজে নাকি নিন্দার ঝড় বইছে। বারেবারে ক্ষমা চাওয়ার জন্য চাপ দেয়া হচ্ছে ক্যাফে কর্তৃপক্ষকে।

প্রসঙ্গত, গত মে মাসে এই একই কারণে উত্তরাখণ্ডের তেহরি জেলার এক হোটেল মালিককে গ্রেফতার করা হয়েছিল।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech