বৌভাতের দিন রক্তদান শিবির

  



পিএনএস ডেস্ক: বৌভাতের দিন রক্তদান শিবিরের আয়োজন করে নজির গড়েছেন ভারতের সদ্য বিবাহিত এক দম্পতি। তাদের এই মহতী উদ্যোগকে এলাকাবাসী স্বাগত জানিয়েছেন।

রোববার (৮ ডিসেম্বর) ভারতের হুগলির চুঁচুড়ার সিংহীবাগানে রক্তদান শিবিরের আয়োজন করেন দীপঙ্কর-সুস্মিতা দম্পতি। চুঁচুড়া সিংহীবাগান এলাকার বাসিন্দা দীপঙ্কর রায়। বর্ধমানের কালনা কলেজের ইতিহাসের অধ্যাপক তিনি। নিজের এলাকাতেও ছেলেমেয়েদের কাছে দীপঙ্কর অত্যন্ত জনপ্রিয়।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এমফিল করার সময় কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাসের ছাত্রী গবেষক সুস্মিতা মান্নার সঙ্গে দীপঙ্করের পরিচয় হয়। পড়াশোনার ফাঁকেই দুজনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এরপর গত শুক্রবার দুজনের বিয়ে হয়। শুরু হয় নতুন এক জীবন।

শুধু চার হাতের মিলন হলেই হবে না, জীবনের এই বিশেষ মুহূর্তগুলোকে স্মরণীয় করে রাখতে তারা এক অভিনব উদ্যোগ নিলেন। বৌভাতের দিন এক রক্তদান শিবিরের আয়োজন করলেন দীপঙ্কর ও সুস্মিতা। তাদের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানাতে পাড়া-প্রতিবেশী থেকে শুরু করে আত্মীয়-স্বজন সবাই হাজিন হন।

রোববার সকাল থেকেই সাজ সাজ রব ছিল চুঁচুড়ার সিংহীবাগানের রায় বাড়িতে। সকাল থেকেই নিমন্ত্রিতরা উৎসাহের সঙ্গে রক্তদান শিবিরে যোগ দেন। পাত্র-পাত্রী দুজনেই রক্তদান করেন। নিমন্ত্রিত অতিথিদের প্রত্যেকের হাতে একটি করে চারাগাছ তুলে দেন নবদম্পতি।

দীপঙ্কর বলেন, অনুষ্ঠান বাড়িতে অনেক সময়ই আমরা প্রয়োজনের তুলনায় অনেক বেশি অর্থ ব্যয় করে থাকি। যদি সমাজের কোনো কাজে লাগাতে পারি তার জন্যই এই আয়োজন।

সুস্মিতা বলেন, বিয়ের অনুষ্ঠান নিয়ে আমাদের মধ্যে আলোচনার সময় দীপঙ্কর তার ইচ্ছের কথা আমাকে জানিয়েছিল। আমি ওর এই সমাজের প্রতি কিছু কর্তব্য পালনের ইচ্ছাকে সম্মান জানিয়েছি।

চুঁচুড়া সদর হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা. স্বপন কুমার দলুই জানান, বিয়েবাড়িতে রক্ত সংগ্রহ করতে আসা এক নতুন অনুভূতি। এভাবে সবাই এগিয়ে আসলে অনেক সমস্যা সহজেই মিটে যাবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

পিএনএস/হাফিজ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন