যে কারণে লাদাখে ঝটিকা সফরে মোদি

  


পিএনএস ডেস্ক: লাদাখ সীমান্ত বিরোধ নিয়ে চলছে ভারত ও চীনের মধ্যে উত্তেজনা। গালওয়ান উপত্যকায় চীনের সেনাবাহিনীর হামলায় ভারতের ২০ সেনা সদস্যর মৃত্যুর পরে শুক্রবার হঠাৎ করে লাদাখে এক ঝটিকা সফরে যান ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ভারতীয় সেনাদের মনোবল বাড়াতেই মোদির এ ঝটিকা সফর বলে জানা গেছে।

প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংহের বদলে প্রধানমন্ত্রী নিজেই লাদাখে পা রাখলেন। তবে, লাদাখে দাঁড়িয়েও ‘চীন’ শব্দটি উচ্চারণ করেননি মোদি। নাম না করেই চীনের ‘সম্প্রসারণবাদের’ দিকে আঙুল তুলেছেন।

মোদি বলেন, সম্প্রসারণবাদের যুগ শেষ। কারও সম্প্রসারণের জেদ চাপলে সে বিশ্বশান্তির পক্ষে বিপদ হয়ে ওঠে। ইতিহাস বলছে এমন শক্তি বরাবরই ধুলায় মিশে গেছে।

এই সফরকে কেন্দ্র করে মোদির ডাকাবুকো ভাবমূর্তি প্রচারে নেমে পড়েছে বিজেপি। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের দাবি, প্রধানমন্ত্রী যে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেন, তা ফের প্রমাণিত হল।

সাবেক সেনাপ্রধান বিক্রম সিংহ বলেছেন, মোদির এ ঝটিকা সফরে চীনকে কড়া বার্তা দেয়া হয়েছে। এটা কৌশলগত ভাবে উপযুক্ত পদক্ষেপ।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন