কলাবাগানে স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যার দায় স্বীকার স্বামীর

  

পিএনএস ডেস্ক : রাজধানীর কলাবাগানে পরকীয়া সন্দেহে স্ত্রী সাজেদা আক্তারকে কুপিয়ে হত্যার দায় স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন ওই নারীর স্বামী ফেরদৌস মিয়া।

আজ বৃহস্পতিবার ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে আসামিকে হাজির করার পর তিনি জবানবন্দি দেন। মহানগর হাকিম শহীদুল ইসলাম ফেরদৌসের জবানবন্দি রেকর্ড করেন। জবানবন্দি রেকর্ড শেষে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত।

গতকাল বুধবার রাতে কলাবাগান ভুতের গলি এলাকায় একটি বাসায় সাজেদাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। স্থানীয় লোকজন স্বামী ফেরদৌসকে আটকে রেখে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করে এবং ফেরদৌসকে গ্রেপ্তার করেন।

আদালত সূত্রে জানা যায়, ফেরদৌস যে বাসায় থাকতেন তার থেকে কিছু দূরের বাসিন্দা রাসেলের সঙ্গে তার স্ত্রীর সম্পর্ক ছিল। ফেরদৌস রিকশা চালাতেন অনেক রাতে বাসায় ফিরতেন। মাঝে মাঝে বাসায় ফিরে দেখতেন তার স্ত্রী বাসায় নেই। খোঁজ নিয়ে জানতে পারেন রাসেলের সঙ্গে ঘুরতে বেরিয়েছেন। এ দিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া বিবাদ। দুই পরিবারের মধ্যে বেশ কয়েকবার সালিশ হয়। বুধবার রাতে এ নিয়ে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়। এক সময় সহ্য করতে না পেরে ফেরদৌস নিজেই তার স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা করেন বলে আদালতে স্বীকার করেন।

পিএনএস-জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech