এক নারীর দুই জরায়ু দিয়ে জন্ম নিল দুই শিশু!

  

পিএনএস ডেস্ক: অবিশ্বাস্য হলেও সত্যি যে, এক নারীর দুটি জরায়ু। তার সেই দুটি জরায়ু থেকে দুটি সুস্থ শিশুরও জন্ম হয়েছে।

শনিবার সকালে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বনগাঁও শহরের একটি নার্সিংহোমে স্বাভাবিকভাবেই দুটি সন্তানের জন্ম দেন এক নারী। এর মধ্যে একটি ছেলে ও অন্যটি মেয়ে। মা ও সন্তানেরা সুস্থ আছে। ওই নারীর নাম টুম্পা রায়। বয়স ২২।

চিকিৎসকেরা একে অপ্রচলিত বলে দাবি করেছেন। এ বিষয়ে ভারতের বাংলা দৈনিক রোববার একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে।

টুম্পা রায়ের অস্ত্রোপচার করেছেন স্ত্রী ও প্রসূতি বিশেষজ্ঞ বিশ্বজিৎ হালদার। তিনি বলেন, নারীদের শরীরে সাধারণত একটি জরায়ু থাকে। গঠনতন্ত্রে ত্রুটির জন্য কোনো নারীর দুটি জরায়ু থাকতে পারে। সেখানে দুটি ভ্রূণ সৃষ্টি হলে একটি সাধারণত নষ্ট হয়ে যায়। কিন্তু টুম্পা রায়ের দুটি জরায়ু থেকে দুটি সুস্থ শিশুর জন্ম হয়েছে।

টুম্পার স্বামী অপূর্ব গুজরাটে কাজ করেন। টুম্পা সেখানেই থাকতেন। অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার পর শ্বশুরবাড়িতে আসেন। শনিবার সকালে তার রক্তক্ষরণ ও প্রসব যন্ত্রণা শুরু হয়। এরপর পরিবারের লোকজন তাকে নার্সিংহোমে নিয়ে যান।

প্রথম দিকে আলট্রাসনোগ্রাফি করানো হয়নি। সে কারণে বিষয়টি আগে থেকে জানা যায়নি। অস্ত্রোপচারে যথেষ্ট ঝুঁকি ছিল বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক বিশ্বজিৎ হালদার। তিনি জানান, কন্যা-সন্তানটির নাড়ি গলায় জড়িয়ে গিয়েছিল।

এ বিষয়ে টুম্পা রায় বলেন, একই সঙ্গে ছেলে-মেয়ে পেয়ে খুবই ভালো লাগছে।

নার্সিংহোমের পক্ষে মুক্তি বসু বলেন, এ রকম একটি ঘটনা সাফল্যের সঙ্গে এখানে ঘটায় আমরাও খুশি।

স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ বিশ্বপতি মুখোপাধ্যায়ও জানিয়েছেন, ঘটনাটি নিঃসন্দেহে বিরল। দুটি জরায়ু সচরাচর দেখা যায় না।


পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech