কয়েন না নেওয়ায় অভিনব কায়দায় বিক্ষোভ

  


পিএনএস ডেস্ক: এক টাকা দুই টাকা ও পাঁচ টাকার কয়েন বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলো না নেওয়ার প্রতিবাদে রংপুরে বাংলাদেশ ব্যাংকের কার্যালয়ের সামনে অভিনব কায়দায় বিক্ষোভ করেছে কনফেকশনারি ব্যবসায়ীরা। সোমবার দুপুরে বিক্ষোভ কর্মসূচির সময় কয়েন দিয়ে এক ব্যবসায়ীকে প্রতীকী কবর দিয়েছে বিক্ষুব্ধ ব্যবসায়ীরা।

এর আগে রংপুর পাবলিক লাইব্রেরি মাঠে সমবেত হয় বাংলাদেশ ব্রেড বিস্কুট অ্যান্ড কনফেকশনারি প্রস্তুতকারক সমিতির ব্যবসায়ীরা। রংপুর বিভাগের সব জেলা উপজেলা থেকে আগত ব্যবসায়ীরা একত্রিত হয়ে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে নগরীর বিভিন্ন সড়ক ঘুরে নগরীর ধাপ এলাকায় অবস্থিত বাংলাদেশ ব্যাংক কার্যালয় ঘেরাও করে বিক্ষোভ করে।

সমাবেশে বক্তারা অভিযোগ করেন, রংপুর বিভাগে হাজারও বেকারি ও কনফেশনারিতে প্রতিদিন হাজার হাজার টাকার কয়েন দিয়ে পণ্য ক্রয় করে ব্যবসায়ীরা। এতে একেক জন ব্যবসায়ীর কাছে জমা পড়ে আছে সর্বনিম্ন ৩০ থেকে লাখ টাকারও বেশি কয়েন। এই কয়েন বাণিজ্যিক ব্যাংক গুলোতে নিয়ে গিয়ে জমা দিতে গেলে ব্যাংকগুলো কয়েক নিতে অস্বীকৃতি জানায়। এতে ব্যবসাযীরা বিপাকে পড়েছে। অনেক বেকারির কয়েনের পরিমান বেশি হওয়ায় তাদের ব্যবসাও বন্ধ হওয়ার উপক্রম হয়েছে। এ ব্যাপারে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোতে বার বার আকুতি জানালেও তারা কয়েনের টাকা গ্রহন করছেনা। বাংলাদেশ ব্যাংক রংপুর কার্যালয় থেকেও কয়েন গ্রহন না করার অভিযোগ রয়েছে। এ ব্যাপারে বাংলাদেশ ব্যাংক কর্মকর্তাদের কাছে অভিযোগ করেও কোনও কাজ হয়নি। ফলে বাধ্য হয়ে বিক্ষোভসহ আন্দোলনে নামতে বাধ্য হয়েছি। ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে কয়েন নেওয়ার ঘোষণা না দেওয়া হলে আরও কঠোর আন্দোলনে যাওয়ার ঘোষণা দেওয়া হবে। পরে কয়েক বস্তা কয়েন দিয়ে এক ব্যবসায়ীকে প্রতীকী কবর দেওয়া হয়।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সভাপতি রিয়াজ শহীদ শোভন সাধারন সম্পাদক ফয়জুল কবীর লিটনসহ অন্যান্য নেতারা। সূত্র: banglatribune

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech