মিয়ানমারের জলসীমানায় প্রাণে রক্ষা পেল ২২ বাংলাদেশি

  

পিএনএস ডেস্ক : বঙ্গোপসাগরে মিয়ানমারের জলসীমানা থেকে ২২ জনকে উদ্ধার করেছেন কোস্টগার্ড সদস্যরা। টেকনাফ থেকে সেন্টমার্টিন দ্বীপে যাওয়া সময় মাঝপথে ঝড়ের কবলে পরে মিয়ানমার জলসীমানার দিকে চলে যান তারা।

স্থানীয়রা জানায়, বৃহস্পতিবার টেকনাফ থেকে সেন্টমার্টিন ফেরার সময় যাত্রীবাহী একটি ট্রলারের ইঞ্জিন বিকল হয়ে পড়ে। ওই ট্রলারে যাত্রীরা দ্বীপের বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা।

কোস্টগার্ডের সেন্টমার্টিনের স্টেশন কমান্ডার লে. জোছেল রানা জানান, টেকনাফ থেকে সেন্টমার্টিন ফেরার সময় ২২ জন যাত্রী নিয়ে একটি ট্রলার নাফ নদী পার হয়ে বঙ্গোপসাগরের মিয়ানমার সীমান্তঘেষা নাইক্ষং দ্বীপ এলাকায় পৌঁছালে ট্রলারটির ইঞ্জিন বিকল হয়ে পড়ে। এর মধ্যে দুই নারী ছিল। খবর পেয়ে তিনিসহ কোস্টগার্ডের একটি দল ঘটনাস্থল থেকে তাদের উদ্ধার করে বিকালে দ্বীপে নিয়ে আসেন। যাত্রীরা সবাই সুস্থ আছেন।

টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ রবিউল হাসান বলেন, সাগরে বিকল ট্রলার উদ্ধার করে দ্বীপে আনা হয়েছে। এতে কোনও ধরনের সমস্যা হয়নি। যাত্রীদের খোঁজ খবর রাখা হচ্ছে।

উদ্ধার ট্রলারে থাকা দ্বীপের বাসিন্দা আবদুর রহিম বলেন, সাগরের মাঝপথে এসে ট্রলার বিকল হয়ে যায়। ট্রলার ভেসে মিয়ানমারের জলসীমানার দিকে চলে যায়। আর ভারী বৃষ্টি দমকা হাওয়া শুরু হলে যাত্রীরা কান্নাকাটি করে। মনে হচ্ছিল আজ জীবনের শেষ দিন।

সেন্টমার্টিন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুর আহমদ বলেন, দ্বীপের বাসিন্দা মাজেদের মালিকানাধীন এফবি সুমাইয়া নামক ট্রলারে একদল সৌদি ফেরত হাজী বাড়িতে ফেরার সময় সাগরের মাঝপথে এই ঘটনা ঘটে।

পিএনএস/মো. শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech