মানুষ যেন যন্ত্র না হয়ে যায়, সেজন্য কবিতা: তথ্যমন্ত্রী

  

পিএনএস ডেস্ক : তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‘মানুষ যেন যন্ত্র না হয়ে যায়, সেজন্য কবিতা ও কবিতাপাঠ চর্চা অব্যাহত রাখা প্রয়োজন।’

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রাজধানীর শাহবাগে কেন্দ্রীয় গণগ্রন্থাগারের শওকত ওসমান মিলনায়তনে আবৃত্তি একাডেমির ২১ বছর পূর্তি উৎসবে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আধুনিকতার নামে, বৈষয়িক উন্নয়নের তাগিদে যন্ত্র হয়ে যাওয়া, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অতিরিক্ত আসক্ত হয়ে পড়া বা জঙ্গিবাদের কালো থাবায় জড়িয়ে পড়া- এসব থেকে মুক্ত থাকার জন্য চাই কবিতা আর কবিতার পাঠ ও আবৃত্তি। একা কবিতা পাঠে আনন্দ আছে, কিন্তু অনেক মানুষের মধ্যে কবিতার আবৃত্তি মানুষকে অনুপ্রাণিত করে, সৃষ্টি করে অপূর্ব ব্যঞ্জনা। তাই আবৃত্তির গুরুত্বও অনেক।’

কবিতা মানুষের মধ্যে দেশপ্রেম, মানবিক মূল্যবোধ ও মমত্ববোধ জাগ্রত করে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, উন্নত দেশের পাশাপাশি উন্নত জাতি হিসেবে গড়ে উঠতে কবিতা হোক আমাদের প্রাণের সাথী।

ড. হাছান মাহমুদ এ সময় আবৃত্তিজন অধ্যাপক নিরঞ্জন অধিকারীর হাতে আবৃত্তি একাডেমি পদক ও পুরস্কারের অর্থ তুলে দেন। এর আগে মন্ত্রী বেলুন উড়িয়ে দুইদিনব্যাপী উৎসব উদ্বোধন করেন।

আবৃত্তি একাডেমির পরিচালক মৃন্ময় মিজানের সভাপতিত্বে উৎসব উদ্বোধন অনুষ্ঠানে আবৃত্তি একাডেমি পদকপ্রাপ্ত অধ্যাপক নিরঞ্জন অধিকারী তার অনুভূতি ব্যক্ত করেন ও বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আহকাম উল্লাহ বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন।

আবৃত্তি একাডেমির আবৃত্তিকারেরা প্রথম দিন মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক ‘রুদ্ধশ্বাসের দিনগুলো’ ও দ্বিতীয় দিন কবি সিকান্দার আবু জাফরের সমসাময়িক প্রসঙ্গে কাব্যমালা ‘বৃশ্চিক লগ্ন’ পরিবেশন করছে।

পিএনএস/মো. শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech