কোরবানির মাংস কাটতে গিয়ে হাত-পা কেটে হাসপাতালে ভিড়

  

পিএনএস ডেস্ক : পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে রাজধানীজুড়ে পাড়া-মহল্লায় কোরবানির মাংস কাটতে গিয়ে শতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন। তাদের ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। আহতরা সবাই মৌসুমি কসাই হিসেবে কাজ করতে গিয়ে আহত হন। বাড়তি চাহিদার কারণে অনেকেই একদিনের কসাই হিসেবে কোরবানির ঈদে কাজ করে থাকেন।

ঢামেক হাসপাতালে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মাংস কাটতে গিয়ে আহতরা সবাই ধারালো ছুরি বা দা দিয়ে হাত বা পায়ে আঘাত পেয়েছিলেন। কারও কারও হাতের ও পায়ের আঙুল কেটে গিয়েছিল। শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতপ্রাপ্ত হয়েও অনেকে ঢাকা মেডিক্যালে চিকিৎসা নিয়েছেন। এছাড়া গরুর শিংয়ের আঘাত কিংবা লাথির আঘাতেও আহত হয়ে চিকিৎসা নিয়েছেন কয়েকজন।

ঢামেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগের আবাসিক সার্জন ডা. আলাউদ্দিন জানান, ‘শনিবার সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত শতাধিক ব্যক্তিকে হাত-পায়ের কাটাসহ কোরবানির মাংস কাটতে গিয়ে আঘাতপ্রাপ্তদের চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। হাত-পা কেটে যাওয়া অনেকের ৫টি থেকে ১০টি পর্যন্ত সেলাই দিতে হয়েছে। তবে কারও ভর্তির প্রয়োজন হয়নি। সবাইকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন