টাকা হাতিয়ে নেওয়া প্রতারকদের প্যাকেজে যা থাকে

  

পিএনএস ডেস্ক : এমএলএম ব্যবসায়ের নামে প্রতারণা করে ১ হাজার ৪২৭ জনের কাছ থেকে ছয় কোটির বেশি টাকা আত্মসাৎকারী চক্রের মূলহোতাসহ ৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে সিআইডি। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন-গাজী মহিউদ্দীন (২৭),আনিছুর রহমান (৩৭) ও মো. হারুনুর রশীদ(৩৭)।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে সিআইডি কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানিয়েছেন অতিরিক্ত ডিআইজি শেখ রেজাউল হায়দার।

তিনি জানান, সিআইডির কাছে কয়েকজন ভুক্তভোগী জানায় যে, সোপান প্রডাক্ট লি. (এসপিএল) এবং সোপান প্রপার্টিজ লি. নামে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খুলে একটি প্রতারক চক্র গ্রাহকদের নিকট থেকে গত ৮ মাসে মূলধনসহ ২৫০% টাকা দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে সদস্য সংগ্রহপূর্বক এমএলএম ব্যবসা পরিচালনা করে প্রতারণা করে আসছে।

এমন অভিযোগের ভিত্তিতে সিআইডি ঢাকা মেট্রো উত্তরের একটি টিম অভিযান পরিচালনা করে এই প্রতারক চক্রের মূল হোতা গাজী মহিউদ্দীনসহ ৩ জনকে গ্রেপ্তার করে।

তিনি আরও জানান, গ্রেপ্তারকৃতদের কাছ থেকে প্রাপ্ত তথ্যপ্রমাণ থেকে জানা যায় গত ছয় মাসে এই চক্রটি ১ হাজার ৪২৭ জন লোকের কাছে একটি ওয়েবসাইটের মাধ্যমে গ্রাহকের লগইন খুলে সদস্যদের ইউজার আইডি ও পাসওয়ার্ড প্রদান করে বিভিন্ন প্যাকেজে টাকা বৃদ্ধির প্রলোভন দেখিয়ে কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছে।

প্রতারকদের প্যাকেজে যা থাকে

সিআইডি জানায়, এই প্রতারকরা অনেক রকমের প্যাকেজের অফার দেয়। তা হলো-২৫০০ টাকায় প্রতিদিন মূলধনসহ ৩০ টাকা (প্যাকেজ-১),৭৫০০ টাকার প্যাকেজে প্রতিদিন ১০০ টাকা (প্যাকেজ-২)

,২২৫০০ টাকার প্যাকেজে প্রতিদিন ৩০০ টাকা (প্যাকেজ-৩),৬৭,৫০০ টাকার প্যাকেজে প্রতিদিন ৯০০ টাকা (প্যাকেজ-৪)

,১০০,০০০ টাকার প্যাকেজে প্রতিদিন ১৩০০ টাকা (প্যাকেজ-৫),কোন সদস্য অন্য কোন সদস্যকে ১ লক্ষ টাকা বিনিয়োগের জন্য নিয়ে আসলে বিনিয়োগের ১০% বোনাস প্রদান (স্পেশাল প্যাকেজ-১)।

এছাড়াও,একজন সদস্য ৩ জন ১ লক্ষ টাকার সদস্যকে নিয়ে আসলে তাকে ১০% বোনাস ছাড়াও আরও ১০ হাজার টাকা অতিরিক্ত লাভ (স্পেশাল প্যাকেজ-২) এভাবে ১৪২৭ জনকে প্রলোভন দেখিয়ে প্রায় ৬ কোটি টাকা গ্রহণ করেছেন।

পিএনএস-জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন