‘যারা নদী দূষণ করে তারা এ যুগের রাজাকার’

  

পিএনএস : নদী বিষয়ক টাস্ক ফোর্সের সভাপতি ও নৌ পরিবহন মন্ত্রী শাহজাহান খান বলেছেন, ‘যারা নদী দখল ও দূষণ করছে তারা এ যুগের রাজাকার। এদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিতে হবে। অপরিকল্পিতভাবে বাঁধ ও স্লুইস গেট নির্মাণের ফলে দেশের নদীগুলো আজ মরে যাচ্ছে।’

আজ বুধবার বিকেলে পাবনার চাটমোহর উপজেলা পরিষদ শহীদ মিনার চত্বরে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) আয়োজিত ‘বেলা ও বড়াল নদী রক্ষা আন্দোলন কমিটির’ জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে নৌমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

শাহজাহান খান বলেন, ‘জিয়াউর রহমানের সময় নদীপথ বন্ধ করা হয়েছে। বাঁধ ও স্লুইস গেট নির্মাণ করা হয়েছে। তখন কেউ প্রতিবাদ করেনি। বর্তমান সরকার নদী খনন করছে। ক্যাপিটাল ড্রেজিং করে নদী সচল করছে। অপরিকল্পিত বাঁধ ও স্লুইসগেট অপসারণ করা হচ্ছে।’

নৌমন্ত্রী বলেন, ‘বড়াল নদী দূষণ বন্ধ করা হবে। বিএনপি যখন ক্ষমতায় ছিল তখন পরিবেশবাদীদের পুলিশ দিয়ে পেটানো হয়েছে। শেখ হাসিনার সরকার পরিবেশবাদীদের নিয়ে কাজ করছে। নদী রক্ষার জন্য আমাদের সময় দিতে হবে। আগামীতে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ফের নৌকায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় আনতে হবে।’

নদী বিষয়ক টাস্ক ফোর্সের সভাপতি বলেন, ‘বিএনপি ইচ্ছেকৃতভাবেই খালেদার জামিন বিলম্বিত করছে। তারা জনগণের সহানুভূতি আদায়ের চেষ্টা করছে। কিন্তু খালেদার নেতৃত্বে বিএনপি বোমা মেরে মানুষ হত্যা করেছে, গাড়ি পুড়িয়েছে, লুটপাট করেছে। জনগণ তা মনে রেখেছে।’

নৌমন্ত্রী বলেন, ‘দেশ আজ মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হয়েছে। তাই আগামীতে নৌকায় ভোট দিতে হবে। দেশের উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে হবে।’

চাটমোহর পৌর মেয়র মির্জা রেজাউল করিম দুলালের সভাপতিত্বে জনসভায় আরও বক্তব্য দেন- নাটোর-৪ আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) আ. কুদ্দুস, বাপার সাধারণ সম্পাদক ডা. আ. মতিন, উপজেলা আ. লীগের সাধারণ সম্পাদক আ. মালেক, জাতীয় নদী কমিশনের চেয়ারম্যান সরকারের সচিব ড. মুজিবুর রহমান হাওলাদার, পাবনা জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিন, বড়াল নদী রক্ষা আন্দোলন কমিটির সদস্য সচিব এস এম মিজানুর রহমান প্রমুখ।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech