পীরগাছায় নববধূর লাশ উদ্ধার, স্বামী-শ্বশুর আটক

  

পিএনএস,রংপুর : রংপুরের পীরগাছা উপজেলার আদম কামার গ্রামে যৌতুকের দাবিতে সাজিনা আখতার (১৯) নামের এক নারীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

আজ মঙ্গলবার সকালে তাঁর মরদেহ স্বামীর শয়নকক্ষ থেকে উদ্ধার করেছে পীরগাছা থানা পুলিশ।

এ হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগে নিহত সাজিনার স্বামী আবু তাহের ও শ্বশুর মোর্শেদুল হককে আটক করেছে পুলিশ ।

নিহত সাজিনার মা হামিদা খাতুন বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা করেছেন।

মামলার বিবরণ ও পুলিশ জানায়, পীরগাছা উপজেলার নটাবাড়ি গ্রামের সাজিনা আখতারের সঙ্গে কয়েক মাস আগে একই এলাকার আবু তাহেরের (২৮) বিয়ে হয়। এর পর থেকেই শ্বশুর ও স্বামী দুই লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে আসছিলেন। আর সেজন্য আবু তাহের প্রায়ই সাজিনাকে মারধর করতেন।

সজিনার বাবা সাহার মিয়া জানান, আগামী এক মাসের মধ্যে তিনি যৌতুকের সব টাকা দেবেন বলে প্রতিশ্রুতিও দিয়েছিলেন। কিন্তু তার আগেই আবু তাহের তাঁর মেয়েকে পিটিয়ে হত্যা করেছেন। তিনি আরো জানান, ঘটনা অন্য খাতে নিতে বেয়াই এবং জামাই তাঁর মেয়ের মুখে বিষ ঢেলে দিয়ে আত্মহত্যার প্রচার চালায়।

পীরগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুল ইসলাম বলেন, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। প্রতিবেদন পাওয়ার পরই সঠিক কারণ উদ্ঘাটিত হবে।


পিএনএস/বাকিবিল্লাহ্

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech