শমশেরনগরে ৪৪তম বিমান সেনার সমাপনী কুচকাওয়াজ

  

পিএনএস, মৌলভীবাজার : বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর প্রধান এয়ার চীফ মার্শাল আবু এসরার, বিবিপি, এনডিসি, এসিএসসি বলেছেন, স্বাধীন জাতির বিমান বাহিনীর মূল দায়িত্ব হচ্ছে দেশের আকাশসীমার প্রতিরক্ষা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষা করা। বাংলাদেশের ভৌগলিক অবস্থান ও সামরিক কৌশলগত দিক বিবেচনায় রেখে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বপ্ন দেখেছিলেন একটি আধুনিক, পেশাদার ও চৌকুস বিমান বাহিনীর।

জাতির পিতার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আন্তরিক প্রচেষ্টায় বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর সাংগঠনিক অবকাঠামো উন্নয়নসহ পর্যায়ক্রমে বিমান বাহিনীতে সংযোজিত হয়েছে বিভিন্ন ধরনের অত্যাধুনিক বিমান, র্যাডার ও প্রয়োজনীয় যুদ্ধাপোকরণ। সততা, একাগ্রতা ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করে দেশ গড়া ও দেশ রক্ষার কাজে অংশ নিতে হবে। তিনি মঙ্গলবার বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর ৪৪ তম নবীন বিমান সেনাদের সমাপনী কুচকাওয়াজে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার শমশেরনগরে অবস্থিত রিক্রুটস ট্রেনিং স্কুল (আরটিএস)-এ প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথাগুলো বলেন ।

মঙ্গলবার সকাল সোয়া ১০টায় বিমান বাহিনী প্রধান এয়ার চীফ মার্শাল আবু এসরার, বিবিপি, এনডিসি, এসিএসসি একটি হেলিকপ্টারে করে কমলগঞ্জ উপজেলার শমশেরনগর বিমান বন্দরে অবতরণ করে সাড়ে ১০টায় বিএএফ আরটিএস প্যারেড গ্রাউন্ডে এসে মনোজ্ঞ সমাপনী কুচকাওয়াজ পরিদর্শন করেন। ৪৪তম বিমান সেনার কুচকাওয়াজের মাধ্যমে ৬৫২ জন রিক্রুট বাংলাদেশ বিমান বাহিনীতে অন্তুর্ভুক্ত হয়েছে।

তাদের মধ্যে এসি-২ মো: এনায়েত উল্লাহ এবং এসি-২ আজহারুল ইসলাম যথাক্রমে শিক্ষা ও জেনারেল সার্ভিস ট্রেনিং-এ সেরা রিক্রুট বিবেচিত হয়েছে। এসি-২ মো: এনোয়েত উল্লাহ সার্বিক বিষয়ে নৈপুণ্যের জন্য শ্রেষ্ঠ রিক্রুট বিবেচিত হয়। এর আগে বিমান বাহিনী প্রধান প্যারেড গ্রাউন্ডে এসে পৌছলে বিমান বাহিনী ঘাটি বাশারের এয়ার অধিনায়ক এয়ার ভাইস মার্শাল এম আবুল বাশার, ওএসপি, এনডিসি, পিএসসি বিমান বাহিনী প্রধানকে স্বাগত জানান।

কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মাঝে বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ, স্থানীয় সামরিক ও বেসামরিক গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও রিক্রুটদের অভিভাবকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

পিএনএস/মো: শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech