ময়মনসিংহে কিশোরী ধর্ষণ, ধর্ষক গ্রেপ্তার

  

পিএনএস ডেস্ক : নিলফামারী থেকে ময়মনসিংহে এসে এক কিশোরী ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ময়মনসিংহ কোতোয়ালী মডেল থানায় মামলা হওয়ার পর শনিবার পুলিশ ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত জয়নাল আবেদীনকে গ্রেপ্তার করে। আজ রবিবার তাকে আদালতে সোপর্দ করা হয়। পুলিশ জানায়, নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার সপ্তম শ্রেণী পড়ুয়া ১২ বছরের এক মাদ্রাসা ছাত্রী বৃহস্পতিবার তার বাবার সঙ্গে অভিমান করে ময়মনসিংহের একটি গাড়িতে উঠে।

শুক্রবার রাতে মেয়েটি ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় যায়। সেখান থেকে একটি পালকি গাড়িতে চড়ে রাত ১১টায় ময়মনসিংহ টাউন হল মোড়ে যায়। পালকির চালক জয়নাল আবেদীন তাকে আশ্রয় দেয়ার কথা বলে আটকে রেখে রাতভর ধর্ষণ করে। শনিবার সকালে মেয়েটিকে মুক্তাগাছা থানার সামনে রেখে জয়নাল আবেদীন পালিয়ে যায়। পথচারীরা তাকে উদ্ধার করে থানায় পাঠায়। পরে মেয়েটির কথা শুনে থানা পুলিশ পালকির চালক জয়নাল আবেদীনকে আটক করে।

মুক্তাগাছা থানার ওসি আখতার মোর্শেদ ঘটনা নিশ্চিত করে বলেন, মেয়েটির কথা শুনে পালকির চালককে আটক করেছি। এর সঙ্গে আরও কেউ জড়িত আছে কিনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

এ ঘটনায় কোতয়ালী মডেল থানার ওসি মো. কামরুল ইসলাম জানান, গ্রেপ্তারকৃত ব্যক্তি স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি দিয়েছে। আসামীকে রোববার আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। বিজ্ঞ বিচারক জামিন নামঞ্জুর করে আসামীকে জেল হাজতে প্রেরণ করার নির্দেশ দেন। ভিকটিমকে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মেয়ের চাচা বাদী হয়ে কোতোয়ালী মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন বলে জানান তিনি।

পিএনএস/জে এ /মোহন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech