ভালুকা, ফুলবাড়িয়া ও গৌরীপুর মুক্ত দিবস

  


পিএনএস, ময়মনসিংহ: শুক্রবার (৮ ডিসেম্বর) ময়মনসিংহের ভালুকা, ফুলবাড়িয়া ও গৌরীপুর মুক্ত দিবস। ১৯৭১ এর এই দিনে আফসার বাহিনীর আক্রমণে পাক ও রাজাকার বাহিনী ভালুকা, ফুলবাড়িয়া ও গৌরীপুর ঘাঁটি ছেড়ে পালিয়ে যেতে বাধ্য হয়। ফলে এই দিনটিকে ভালুকা ও গৌরীপুরের মুক্তিকামী জনতার মুক্ত দিবস হিসেবে উদযাপন করে আসছে।

৭১ এর ৭ ডিসেম্বর মধ্যরাতে আফসার বাহিনীর অধিনায়ক মেজর আফসার উদ্দিন আহমেদের নেতৃত্বে ভালুকা সদরে পাক ও রাজাকার বাহিনীর ঘাঁটির তিন দিক থেকে প্রচণ্ড আক্রমণ শুরু করলে পাক সেনারা একপর্যায়ে ভালুকা ঘাঁটি ত্যাগ করতে বাধ্য হয়। এ সময় মুক্তিযোদ্ধারা ভালুকা থানা প্রাঙ্গণে স্বাধীন বাংলাদেশের পতাকা উত্তোলন করে।

এর পরেই বাহিনীর প্রধান মেজর আফসার উদ্দিন আহমেদ ও কোম্পানি কমান্ডার বছির উদ্দিন আহমেদ ও সিরাজুল ইসলামের নেতৃত্বে মুক্তিযোদ্ধার বিশাল বাহিনী ভালুকা থানায় ও ধামশুর চৌধুরী বাড়িতে মুক্তিবাহিনীর ক্যাম্প স্থাপন করেন।

১৯৭১ সালের এই দিনে ফুলবাড়িয়া উপজেলার লক্ষীপুর, আছিম, রাঙ্গামাটিতে বেশ কয়েকটি সম্মুখ যুদ্ধ সংঘটিত হয়। এতে শহীদ হন ৭ জন বীর মুক্তিযোদ্ধা। ৭ ডিসেম্বর ভোর ৪টার দিকে তিন দিক থেকে আক্রমণ করে ফুলবাড়িয়া থানাকে শত্রুমুক্ত করেন।

মুক্ত দিবসকে ঘিরে ভালুকা, ফুলবাড়িয়া ও গৌরীপুর উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ যৌথ উদ্যোগে দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচী গ্রহণ করেছে।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech