গড়াইয়ে র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ১

  


পিএনএস, কুষ্টিয়া: কুষ্টিয়া জেলায় র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) এর সঙ্গে কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ হামিদুল ইসলাম (৪৫) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।

র‌্যাবের দাবি নিহত হামিদুল ইসলাম চিহ্নিত সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ী। এসময় র‌্যাব দেশী-বিদেশী অস্ত্র উদ্ধার করেছে।

মঙ্গলবার (১৫ মে) ভোর সাড়ে ৫টার দিকে কুষ্টিয়ার শহরের গড়াই নদীর বাঁধ সংলগ্ন চর মিলপাড়ার বালুর মাঠে এ ‘বন্দুকযুদ্ধের’ এ ঘটনা ঘটে। নিহত হামিদুল ইসলাম সদর উপজেলার ইটভাটা এলাকার মৃত রুস্তম আলীর ছেলে।

র‌্যাব-১২ কোম্পানি কমান্ডার এম মুহাইমিনুর রশিদ জানান, সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড ঘটানোর উদ্দেশ্যে একদল সন্ত্রাসী গড়াই নদীর পাড় সংলগ্ন বালুরমাঠে অবস্থান করছে এমন গোপন সংবাদ পেয়ে র‌্যাবের একটি টহলদল ঘটনাস্থলে অভিযান চালায়। র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে সন্ত্রাসীরা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। জবাবে র‌্যাবও পাল্টা গুলি চালালে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ একজন গুলিবিদ্ধ হলে তাকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

র‌্যাবের জানতে পারে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ব্যক্তি হামিদুল বাহিনীর প্রধান শীর্ষ সন্ত্রাসী হামিদুল ইসলাম। তিনি পুলিশের তালিকাভুক্ত একজন শীর্ষ সন্ত্রাসী। তার বিরুদ্ধে হত্যা, মাদকসহ বিভিন্ন অপরাধের একাধিক মামলা রয়েছে। ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ২ র‌্যাব সদস্য আহত হলে তাদের চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ১টি দেশী পিস্তল, ১টি বিদেশী পিস্তুল, ৫ রাউন্ড গুলি ও ২টি ম্যাগজিন উদ্ধার করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০০৭ সালে হামিদুল বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড তার ছোট ভাই রাশিদুল ইসলাম ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত হয়।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech