বাগেরহাটে দায়িত্ব পালনকালে উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তার মৃত্যু

  

পিএনএস ডেস্ক : বাগেরহাটের উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. তাপস কুমার দাস (৪৯) দায়িত্বরত অবস্থায় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে কচুয়া উপজেলা হাসপাতালে তার অফিস রুমে চেয়ারে বসা অবস্থায় তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হন। এসময় দ্রুত বাগেরহাট সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা ডা. তাপসকে মৃত ঘোষণা করেন।

বাগেরহাটের সিভিল সার্জন ডা. অরুণ চন্দ্র মন্ডল দুপুরে বলেন, প্রতিদিনের মতো বৃহস্পতিবার সকালে কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. তাপস কুমার দাস তার কার্যালয়ে আসেন। সেখানে দাফতরিক কাজ করার সময়ে হঠাৎ তিনি তার সহকর্মীদের ডেকে তার বুকে ব্যাথা অনুভূত হচ্ছে বলে জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন।

এসময় তার সহকর্মীরা তার চিকিৎসা শুরু করেন। তার অবস্থার কোন উন্নতি না হওয়ায় তাকে দ্রুত বাগেরহাট সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। দুপুর একটায় তাকে মৃত ঘোষণা করা হয়।

বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে হাসপাতালে কর্তব্যরত অবস্থায় হ্নদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে তার মৃত্যু হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে।

ডা. তাপস কুমার দাস বরিশাল মেডিকেল কলেজে থেকে তিনি এমবিবিএস পাশ করে ২১তম বিসিএসে কৃতকার্য হন। ২০০৩ সালের ২১ মে মেডিকেল অফিসার হিসেবে স্বাস্থ্য বিভাগে যোগদান করেন। সর্বশেষ তিনি ২০১৬ সালে পদোন্নতি পেয়ে কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

তিনি বাগেরহাটের কচুয়া উপজেলার চরকাঠী দাসপাড়া এলাকার মৃত. শরৎচন্দ্র দাসের ৭ ছেলে-মেয়ের মধ্যে সবার ছোট ছিলেন।জয়িতা দাস (১৫) নামে তার একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। প্রায় ৩ বছর আগে তার স্ত্রী ডা. তপোতি পোদ্দার মারা যান।

পিএনএস/জে এ /

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech