ময়মনসিংহ সিটি নির্বাচনে ভোট ছাড়াই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আ’লীগের ইকরামুল হক টিটু মেয়র নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন

  

পিএনএস, ময়মনসিংহ প্রতিনিধি : নবগঠিত ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের প্রথম নির্বাচনে ভোট ছাড়াই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আ’লীগের ইকরামুল হক টিটু মেয়র নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন।

মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় দুই প্রার্থীর একজন জাতীয় পার্টির জাহাঙ্গীর আহমেদ মঙ্গলবার বিকেলে নগরীর একটি কমিউনিটি সেন্টারে সংবাদ সম্মেলন করে প্রার্থিতা প্রত্যাহারের ঘোষণা দেয়ায় মসিক ভোটাররা মেয়র পদে ভোট দেওয়ার সুযোগ পাচ্ছেন না। তবে ভোট ছাড়াই প্রথম নগরপিতা পেতে যাচ্ছেন তারা।

আগামীকাল বুধবার মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন জাতীয় পার্টির প্রার্থী জাহাঙ্গীর আহমেদ সংশ্লিষ্ট রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে মনোনয়ন প্রত্যাহারের আবেদন জমা দিলে প্রার্থী হিসেবে টিকে থাকবেন শুধু আওয়ামী লীগের মেয়র পদপ্রার্থী ইকরামুল হক টিটু। এতে বিনা ভোটে মেয়র নির্বাচিত হবেন ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের বর্তমান প্রশাসক আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী ইকরামুল হক টিটু।

প্রসঙ্গত,ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশন (মসিক) এর আগামী ৫ মে প্রথম নির্বাচনে সোমবার মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষদিনে মেয়র পদে ৫ প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। পরে বুধবার (১০ এপ্রিল) মেয়র প্রার্থীদের মনোনয়ন যাচাই-বাছাই শেষে মেয়র পদে মনোনয়ন জমাকৃত পাঁচ জন প্রার্থীর মধ্যে জেলা জাতীয় পার্টির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আবু মুসা সরকার ও জাপা নেতা শহিদুল ইসলাম স্বপন মন্ডল এবং নির্দলীয় স্বতন্ত্র প্রার্থী বিশ্বজিৎ ভাদুরিসহ তিন প্রার্থীর শর্ত পূরণ না হওয়ায় মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষনা করে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। বাতিল কৃত ৩ প্রার্থীই আপিল করলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ আদেশ বহাল রাখে। এতে বৈধ দুই মেয়র প্রার্থী হন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশনের প্রথম প্রশাসক ও সাবেক মেয়র ইকরামুল হক টিটু, জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী মহানগর জাপার সভাপতি জাহাঙ্গীর আহমেদ। কিন্তু মঙ্গলবার (১৬ এপ্রিল)বিকেলে নগরীর একটি কমিউনিটি সেন্টারে সংবাদ সম্মেলন করে জাতীয় পার্টির প্রার্থী জাহাঙ্গীর আহমেদ প্রার্থিতা প্রত্যাহারের ঘোষণা দেয়ায় ভোট ছাড়াই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আ’লীগের ইকরামুল হক টিটু মেয়র নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন।শুধু আনুষ্ঠানিকতার মাধ্যমে বাকী কার্যক্রম শেষ হলেই ময়মনসিংহ সিটির প্রথম নির্বাচনে ভোট ছাড়াই প্রথম মেয়র পাচ্ছেন ভোটাররা।

মসিক নির্বাচনে ৩৩টি ওয়ার্ডে সাধারণ কাউন্সিলর পদে ২৫৯ জন এবং সংরক্ষিত আসনের মহিলা কাউন্সিলর পদে ৭১ জন তাদের মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। আগামী ৫ মে নতুন এই সিটি করপোরেশনের প্রথম নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ১৩০টি কেন্দ্রে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) ভোট হবে।

পিএনএস/মো: শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech