ভিক্ষুকের ব্যাগে ৮০ হাজার টাকা

  



পিএনএস ডেস্ক: বগুড়ার সোনাতলা উপজেলার সীমান্তবর্তী গাবতলী উপজেলার সুখানপুকুর রেল স্টেশনে ট্রেনে কাটা খোকা মোল্লা নামের এক ভিক্ষুকের ব্যাগে পাওয়া গেছে নগদ ৮০ হাজার ১৯০ টাকা। তিনি গাবতলী উপজেলার নেপালতলী ইউনিয়নের ধনঞ্জয় গ্রামের মৃত মুনি মোল্লার ছেলে।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, ওই ভিক্ষুক প্রায় ২৫ বছর ধরে ভিক্ষাবৃত্তি করে আসছিলেন। তিনি তার ভিক্ষাবৃত্তির টাকাগুলো ব্যাগে রেখে বহন করে বেড়াতেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বুধবার দুপুরে গাইবান্ধার বোনারপাড়া থেকে বগুড়ার সান্তাহারগামী ট্রেনটি সুখানপুকুর রেল স্টেশনে থামলে ওই ভিক্ষুক ট্রেনে ওঠেন। এরপর ট্রেন ছাড়লে ঝাঁকুনিতে ওই ভিক্ষুকের হাতে থাকা ব্যাগটি নিচে পড়ে যায়। এ সময় ভিক্ষুক খোকা মোল্লা ট্রেন থেকে নামার চেষ্টা করেন। তখন ট্রেন থেকে পড়ে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। স্থানীয় লোকজন ভিক্ষুকের মরদেহের পাশে একটি ব্যাগ দেখতে পান। ওই ব্যাগে প্রচুর টাকা দেখে স্টেশন মাস্টারের কাছে জমা দেন তারা।

গাবতলী উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আবুল কালাম আজাদ বাদল বলেন, ভিক্ষুকের ব্যাগে খুচরা ও টাকার নোট ছিল। যা গণনা করতে প্রায় ৩ ঘণ্টা সময় লেগেছে। ভিক্ষুকের ব্যাগে ৮০ হাজার ১৯০ টাকা পাওয়া গেছে।

সুখানপুকুর রেল স্টেশনের মাস্টার আব্দুল মতিন বলেন, ভিক্ষুকের ব্যাগ থেকে পাওয়া টাকাগুলো চেয়ারম্যান-মেম্বারদের উপস্থিতিতে নিহত ভিক্ষুকের পরিবারকে দেয়া হয়েছে।

পিএনএস/ হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech