সোনারগাঁ জাদুঘরে নারীসহ আটক কবি রবীন্দ্র গোপ

  

পিএনএস ডেস্ক : নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয় জাদুঘরে বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনের সাবেক পরিচালক কবি রবীন্দ্র গোপ এবং এক নারীকে আটক করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার দুপুরে জাদুঘরের ভিতরে ডাক বাংলোয় স্থানীয়রা রবীন্দ্র গোপকে আটকে রেখে থানায় খবর দিলে পুলিশ গিয়ে তাকে নিয়ে আসে বলে জানিয়েছেন সোনারগাঁ থানার ওসি মনিরুজ্জামান।

তিনি সাংবাদিকদের বলেন, “প্রকৃত ঘটনাটি পুলিশ তদন্ত করে দেখছে। ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের অবহিত করা হয়েছে। ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”

রবীন্দ্র গোপ ও ওই নারী এখন পুলিশ হেফাজতে রয়েছেন। ওই নারী কবি রবীন্দ্র গোপের বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ করেননি বলে জানান ওসি।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে ওসি মনিরুজ্জামান জানান, বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনে সাপ্তাহিক ছুটি ছিল। বেলা ১২টার দিকে ২০-২২ বছর বয়সী এক নারী জাদুঘরের ভেতরে ডাক বাংলোয় ঢোকেন, যেখানে ছিলেন রবীন্দ্র গোপ।

“তখন ডাক বাংলোর বাইরে স্থানীয় লোকজন হৈ চৈ শুরু করে এবং সাংবাদিকদের খবর দেয়। প্রায় এক ঘণ্টা তাদের রুমের ভেতরে অবরুদ্ধ রাখা হয়। পরে সোনারগাঁ থানার পরিদর্শক আলমগীর হোসেন ও এসআই আজাদের নেতৃত্বে একদল পুলিশ কবি রবীন্দ্র গোপ ও ওই নারীকে পুলিশ হেফাজতে নিয়ে আসে।”

পরিদর্শক আলমগীর হোসেন বলেন, “স্থানীয়দের মাধ্যমে সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে কবি রবীন্দ্র গোপ ও এক নারীকে আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।”

ওসি মনিরুজ্জামান বলেন, “সে (ওই নারী) পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছে, একটি বিষয় সম্পর্কে খবর নিতে সে লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনের সাবেক পরিচালকের ডাক বাংলোয় এসেছিল।”

কবি রবীন্দ্র গোপ প্রায় ১০ বছর ধরে বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনের পরিচালকের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। সম্প্রতি তার চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়েছে।

গত ১৭ মে বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনের পরিচালক রবীন্দ্র গোপের চুক্তিভিত্তিক নিয়োগের মেয়াদ শেষ হয়। এদিন থেকে অতিরিক্ত পরিচালক (অতিরিক্ত দায়িত্ব) হিসেব দায়িত্ব পালন করছিলেন খোরশেদ আলম। পরবর্তীতে গত ৩ জুন বিসিএস প্রশাসনের উপপরিচালক আহমদ উল্লাহ প্রেষণে বাংলাদেশ লোক ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশনের পরিচালক পদে দায়িত্ব পেয়েছেন।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech