মেহেরপুর সরকারি কলেজে ছাত্রলীগে বিবাদ, আহত ৫

  

পিএনএস ডেস্ক : মেহেরপুর সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের অভ্যন্তরীণ বিবাদের জের ধরে রুবেল গ্রুপের হামলায় জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সম্পাদক সুমাইয়া আক্তারসহ পাঁচজন আহত হয়। সোমবার দুপুরের দিকে এঘটনা ঘটে।

অপর আহতরা হল- জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অপরাজিতা অধিকারী, দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র সাফিউল্লাহ, একাদশ শ্রেণির ছাত্র মোকিম উদ্দিন এবং মাসুদ হোসেন। আহতরা মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছে। সাধারণ শিক্ষার্থীরা জানায়, কয়েকদিন ধরে কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি কুদরত ই খুদা রুবেল ও জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সম্পাদক সুমাইয়া আক্তার গ্রুপের সাথে দ্বন্দ্ব চলে আসছে। সেই দ্বন্দ্বের জের ধরে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সম্পাদক সুমাইয়া আক্তার জানান, কলেজের ছাত্র না হয়েও কুদরত ই খুদা রুবেল কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতির পদ ধরে রেখেছেন। ক্ষমতার অপব্যবহার করার জন্য সে বিভিন্ন সময় কলেজের ছাত্রছাত্রীদের ভয়ভীতি দেখায়। কয়েকদিন আগে রুবেল গ্রুপের কয়েকটি ছেলে আমাদের সাথে খারাপ আচরণ করে। আমিসহ জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পরাজিতা অধিকারীকে কটু কথা বলে। তার প্রতিবাদ করলে তখন বাকবিতণ্ডা হয়। পরে আমাদের দেখে নেওয়ার হুমকি দেয়। আজ কলেজে আসলে পুনরায় তারা আমাদের সাথে খারাপ আচরণ করে এবং এক পর্যায়ে রুবেল ও কলেজ শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক শোভনের নেতৃত্বে কয়েকজন আমাদের উপর হামলা চালায়।

তবে সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি কুদরত ই খোদা রুবেল জানান, কয়েকদিন পূর্বে জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ন সম্পাদক সুমাইয়া একাদশ শ্রেণির এক ছাত্রকে ডাকাডাকি করে। সে সময় ওই ছাত্র তার ডাকে সাড়া না দিলে তাকে শারীরিভভাবে তাকে লাঞ্চিত করার পাল্টা অভিযোগ তুলেন।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech