দিনাজপুরে যুবকের খণ্ড-বিখণ্ড লাশ উদ্ধার

  

পিএনএস ডেস্ক : দিনাজপুরের খানসামায় গোলাপ হোসেন (২৭) নামে এক যুবকের বিচ্ছিন্ন দেহ ও মাথা উদ্ধার করেছে পুলিশ।

নিহত গোলাপ হোসেন খানসামা উপজেলার আলোকঝাড়ী ইউনিয়নের শুশুলী গ্রামের মৃত আতিক ইসলামের ছেলে।

মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে খানসামা উপজেলার আলোকঝাড়ী ইউনিয়নের শুশুলী গ্রামে পৃথক স্থান থেকে ওই যুবকের ধড় ও মাথা উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, সোমবার ঈদের দিন খাবার খেয়ে গোলাপ হোসেন নিজ কক্ষে ঘুমিয়ে পড়েন। পরের দিন মঙ্গলবার সকালে বাড়ির পার্শ্বে স্থানীয় লোকজন রক্ত দেখে ইউপি সদস্য ও পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে রক্তের চিহ্ন দেখে দেখে নিহত গোলাপের বাড়ি থেকে প্রায় ৩শ মিটার দূরে তার মাথাবিহীন দেহ মাটি খুঁড়ে উদ্ধার করে। এরপর প্রায় ৮শ মিটার দূরে গোলাপের শরীর বিহীন মাথা মাটির নিচ থেকে উদ্ধার করে পুলিশ।

খানসামার থানার ওসি (তদন্ত) এসএম মোস্তাফিজুর রহমান এ খবর নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে নিহতের শয়নকক্ষসহ বিভিন্ন স্থান থেকে আলামত উদ্ধার করেছে। প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে তাকে নিজ শয়নকক্ষেই গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিহতের সৎমা ও সৎভাইসহ তিনজনকে থানায় আনা হয়েছে। লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করে ময়নাতদন্তের জন্য এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। পূর্ব-শত্রুতার জের ধরে এই হত্যাকাণ্ড ঘটেছে বলে পুলিশের ধারনা।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech