সরাইলে রিলিফের চালসহ আটক ৫

  

পিএনএস, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রতিনিধি : ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সরাইল উপজেলা শাহজাদাপুর ইউনিয়নে রিলিফ এর চাল সহ পাঁচ শ্রমিককে আটক করেছে পুলিশ। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে দেওড়া গ্রাম এলাকা থেকে এসব চাল জব্দ সহ সেই পাঁচ শ্রমিককে আটক করে।

সরাইল উপজেলার শাহজাদাপুর ইউনিয়ন পরিষদ থেকে বুধবার বিকেলে সরাসরি শতাধিক বস্তা রিলিফ এর চাল বের করে স্থানীয় শাহজাহান মিয়ার বাড়িতে মজুত করেন পাঁচ শ্রমিক। রাতে এসব চাল পাচারের সময়ে সরাইল থানা পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে দেওড়া গ্রাম এলাকা থেকে এসব চাল জব্দ সহ সেই পাঁচ শ্রমিককে আটক করে। পুলিশ রাতব্যাপী নির্ঘুম অভিযান চালিয়ে শতাধিক বস্তা ভর্তি রিলিফ এর চাল ও দেড় শতাধিক সরকারি সীলমোহর যুক্ত খালি বস্তা উদ্ধারের পর থানায় নিয়ে আসে।

ভোর পৌনে ৪টায় সরাইল থানার এস.আই মো. মনজুর আহমেদ থানায় উপস্থিত সাংবাদিকদের জানান, আটক পাঁচ শ্রমিক পুলিশের কাছে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন 'তারা এসব রিলিফের চালের বস্তা সরাসরি শাহজাদাপুর ইউনিয়ন পরিষদ ভবন থেকে তুলে স্থানীয় শাহজাহান মিয়ার বাড়িতে নিয়ে মজুত করেন। সন্ধ্যার পর এসব রিলিফের চাল সরকারি বস্তা বদল করে সাদা প্লাস্টিকের বস্তায় ভরে।' পুলিশের এই দারোগা আরও জানান, সরকারি গুদাম থেকে এসব রিলিফ এর চাল গ্রহণ করেন শাহজাদাপুর ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম খোকন। এই চাল পাচারের অভিযোগে চেয়ারম্যান সহ সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা দায়ের এর প্রস্তুতি চলছে।

এদিকে আজ বৃহস্পতিবার সকাল থেকে এই সরকারি চাল উদ্ধার ও মামলা দায়ের বিষয়টি নিয়ে নাটকীয়তা শুরু হয়েছে। একটি মহল অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যানকে এর দায় থেকে রক্ষা করতে নানা কূটকৌশল শুরু করে দিয়েছে।

অপরদিকে সরাইল খাদ্য গুদাম কর্মকর্তা মোছা. হাফছা হাই সাংবাদিকদের জানান, রিলিফের চাল চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম খোকন নিজে স্বাক্ষর দিয়ে সরকারি গুদাম থেকে গ্রহন করে নিয়েছেন।

রিলিফ বিতরণের তদারকি কর্মকর্তা ও উপজেলা দারিদ্র বিমোচন কর্মকর্তা সাংবাদিকদের জানান, রিলিফ বিতরণে ইউপি চেয়ারম্যান বা সচিব কেউই কিছুই আমাকে জানাননি।

ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম খোকন এই উদ্ধারকৃত রিলিফ এর চালের বিষয়ে সাংবাদিকদের জানান, তিনি এসবের কিছুই জানেননা। মাস্টার রোল অনুযায়ী তার চালের হিসেব-নিকেশ সঠিক রয়েছে।

এদিকে স্থানীয় সচেতন নাগরিকেরা দাবি করেছেন এই সরকারি রিলিফ এর চাল পাচারের সঙ্গে ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম খোকন জড়িত। তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের সহ তাকে গ্রেফতার করে বিচারের মুখোমুখি দাঁড় করাতে প্রশাসনের কাছে জোর দাবি জানানো হয়েছে।

পিএনএস/মো. শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech