ধর্ষিত কিশোরীর সন্তান প্রসব

  

পিএনএস ডেস্ক : রাজশাহীর দুর্গাপুরে সহপাঠীর ধর্ষণের শিকার ১৪ বছরের ছাত্রী সন্তান প্রসব করেছে। ঘটনা জানাজানির পর থেকেই অভিযুক্ত ধর্ষক সজীব আহম্মেদ বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে।

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে দুর্গাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) খুরশীদা বানু কনা ওই কিশোরী ও তার সন্তানকে উদ্ধার করে দুর্গাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

চিকিৎসাধীন ওই কিশোরী জানান, তার সঙ্গে একই গ্রামের সজীব নামের এক ছেলে মাদরাসায় নবম শ্রেণিতে পড়তো। তারা একই ক্লাসে পড়াশোনার সুবাদে প্রায় ৯ মাস আগে সে সজীবের বাড়িতে গাইড বই আনতে যায়। ওইদিন সজীব তাদের বাড়ি ফাঁকা পেয়ে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। ওই কিশোরী ঘটনাটি কাউকে না জানিয়ে বাড়ি চলে যায়। পরে সে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। গত বৃহস্পতিবার দুপুর ২টার দিকে ওই কিশোরী নিজ বাড়িতে পুত্র সন্তান প্রসব করে।

এ ব্যাপারে দুর্গাপুর থানার ওসি বলেন, প্রাথমিকভাবে জিজ্ঞাসাবাদে ওই কিশোরী তার সহপাঠী সজীব নাম পুলিশকে জানিয়েছে। যেহেতু ওই কিশোরী ও তার সন্তান অসুস্থ, সেহেতু তাদের চিকিৎসা প্রয়োজন। তাই তারা উভয়কে উদ্ধার করে দুর্গাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেছে। মা-ছেলে সুস্থ হলে তদন্ত সাপেক্ষে জড়িতের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পিএনএস/মো. শ্যামল ইসলাম রাসেল

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন