রাঙ্গাবালীতে স্পিডবোট ডুবে নিখোঁজ ৫

  

পিএনএস ডেস্ক : দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার মধ্যে পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলার কোড়ালিয়া থেকে গলাচিপার পানপট্টি লঞ্চঘাটের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া যাত্রীবাহী একটি স্পিডবোট ডুবির ঘটনা ঘটেছে। এতে চালকসহ ১৩ যাত্রীকে জীবিত উদ্ধার করা সম্ভব হলেও পাঁচজন নিখোঁজ রয়েছেন।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় আগুনমুখা নদীতে এ ঘটনা ঘটে।

নিখোঁজ ব্যক্তিরা হলেন- পুলিশ কনস্টেবল মহিব্বুল্লাহ (৪৫), এনজিও কর্মী মোস্তাফিজ (৩৫), কবির হোসেন (২৮), দিনমজুর হাসান (৩৫) ও ইমরান (৩৪)। পুলিশ ও উপজেলা প্রশাসন উদ্ধারের কার্যক্রম চালাচ্ছেন।

স্থানীয় বাসিন্দা মো. রিয়াদ বলেন, সন্ধ্যায় রাঙ্গাবালী কোরালিয়া ঘাট থেকে ১৮ জন যাত্রী নিয়ে একটি স্পিডবোট গলাচিপার পানপট্টি ঘাটের উদ্দেশ্য ছেড়ে যায়। পথে চরের কাছে পৌঁছালে আগুনমুখা নদীর ঢেউয়ের তোড়ে স্পিডবোটটি ডুবে যায়। এতে ১৩ জন যাত্রী সাঁতরে পাড়ে উঠতে পারলেও পাঁচজন নিখোঁজ রয়েছেন।

রাঙ্গাবালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মাশফাকুর রহমান জানান, নিখোঁজ ব্যক্তিদের উদ্ধারের জন্য পুলিশ ও পোস্টগার্ডসহ আমাদের অভিযান অব্যাহত আছে।

পটুয়াখালী নদী বন্দরের সহকারী পরিচালক খাজা সাদিকুর রহমান বলেন, ঘটনাটি শুনেছি। আমি ঘটনাস্থলে রওনা হয়েছি। জেলা প্রশাসন ও বিআইডব্লিউটিএ’র ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের বিষয়টি অবগত করেছি। উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

গলাচিপা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মনিরুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, নিখোঁজদের উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।

পিএনএস/এসআইআর


 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন