শাহজাদপুরে আটক ৪ জঙ্গি এখন কারাগারে

  

পিএনএস ডেস্ক : সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরের উকিলপাড়ার ‘জঙ্গি আস্তানা’ থেকে আটক সন্দেহভাজন চার জেএমবি সদস্যকে নাশকতা, সন্ত্রাস, অস্ত্র ও বিস্ফোরক দ্রব্য আইনের ধারাসহ ৩টি পৃথক মামলায় অভিযুক্ত করা হয়েছে।

র‌্যাব-১২’র অপরাধ দমন বিশেষ ইউনিটের উপ-সহকারী পরিচালক (ডিএডি) মো. আনোয়ারুল ইসলাম বাদী হয়ে শনিবার (২১ নভেম্বর) বিকালে শাহজাদপুর থানায় মামলাগুলো রুজু করেন। সন্ধ্যার পর আদালতের মাধ্যমে তাদের জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা (আইও) শাহজাদপুর থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) আব্দুল মজিদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তারা হলো−জেএমবির শীর্ষ সক্রিয় সদস্য পাবনার সাথিয়া উপজেলার দাড়ামুধা গ্রামের মোখলেসুর রহমানের ছেলে শামীম হোসেন ওরফে কিরণ (১৯), একই এলাকার আবু তালেবের ছেলে নাইমুল ইসলাম (২৫), দিনাজপুর কোতোয়ালি থানার শশরাসাহাপাড়া গ্রামের মানিক হোসেনের ছেলে আতিউর রহমান (১৯) ও সাতক্ষীরা জেলার তালা থানার দক্ষিণ নলতা গ্রামের বজলুর রহমানের ছেলে আমিনুল ইসলাম শান্ত (২০)।

টানা সাড়ে ৫ ঘণ্টার অভিযান শেষে শুক্রবার (২০ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উল্লিখিত ৪ জেএমবি সদস্য র্যাবের কাছে আত্মসমর্পণ করে। পরে র্যাবের বোম্ব ডিসপোজাল দল তাদের কাছ থেকে দুটি পিস্তল, বোমা তৈরির সরঞ্জাম ও জিহাদি প্রশিক্ষণের কিছু বই উদ্ধার করে।

ছাত্র পরিচয়ে শাহজাদপুরের উকিলপাড়ায় ভাড়া নিয়ে তাবলিগ জামাতের ছদ্মবেশে তারা জেএমবির জিহাদি প্রশিক্ষণ কার্যক্রম চালাতো বলে জানায় র‌্যাব।

পিএনএস/এসআইআর

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন