পাকিস্তানি প্রেমিকের কাছে যেতে গিয়ে সীমান্তে আটক ভারতীয় শিক্ষিকা

  28-06-2022 08:09AM


পিএনএস ডেস্ক : পাকিস্তানি প্রেমিকের সাথে দেখা করতে এসে সীমান্তে আটক হয়েছেন ২৪ বছর বয়সী এক ভারতীয় স্কুলশিক্ষিকা। পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম জিও টিভি সোমবার এক প্রতিবেদনে জানায়, ওয়াঘা সীমান্ত থেকে ফিজা খান নামের ওই শিক্ষিকাকে আটক করা হয়।

জানা গেছে, ওই তরুণী মধ্য প্রদেশের রেওয়া জেলার একটি স্কুলের শিক্ষিকা। তিনি পাকিস্তানের লাহোরের এক যুবকের প্রেমে পড়েছেন। তাকে বিয়ে করার জন্যই সীমান্ত পার হওয়ার চেষ্টা করছিলেন ফিজা। তখন পুলিশ আটক করে তাকে।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পরিচয় এবং পরে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে ফিজা খান ও ওই পাকিস্তানি যুবকের মধ্যে। এরপরই তারা দু’জনে বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন। তরুণীটি নয়া দিল্লিতে অবস্থিত পাকিস্তানি হাইকমিশন থেকে ভিসা নেন এবং পরিবারকে না জানিয়েই পাকিস্তানে রওনা হয়েছিলেন।

তরুণীর বাবা তার নিখোঁজ হওয়ার বিষয়টি থানায় জানান। এরই পরিপ্রেক্ষিতে থানা কর্তৃপক্ষ দেশটির এয়ারপোর্ট, রেলওয়ে স্টেশন ও বাসস্ট্যান্ডে সংশ্লিষ্টদের নজরদারি বাড়ানোর নির্দেশনা দেয়। এই নির্দেশনা ওয়াঘা বর্ডারে দায়িত্বরত ভারতীয় ফোর্সের কাছেও পাঠানো হয়।

তাই যখন-ই তরুণীটি ওয়াঘায় পৌঁছায়, তখনই অফিসাররা তাকে হেফাজতে নিয়ে নেন। প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, নিরাপত্তা বাহিনী এই প্রেম কাহিনীকে একটি স্পর্শকাতর নিরাপত্তা ইস্যু মনে করে তাকে মধ্যপ্রদেশ পুলিশের কাছে হস্তান্তর করার ব্যবস্থা নিয়েছে। সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া ও দ্য ট্রিবিউন ইন্ডিয়া।


পিএনএস/আনোয়ার

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন