লোহার ওজনে মর্টারশেল বিক্রি, অতঃপর...

  24-06-2024 11:19AM


পিএনএস ডেস্ক: পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া উপজেলায় একটি ওয়ার্কশপ দোকানের সামনে থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় একটি বোম সদৃশ্য মর্টারশেল উদ্ধার করা হয়েছে। খবর পেয়ে বাংলাবান্ধা বিওপি ক্যাম্পের সদস্য ও থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মর্টারশেলটি উদ্ধার করে ওই দোকানের সংরক্ষিত স্থানে রাখে।

রোববার (২৩ জুন) দুপুরে উপজেলার বাংলাবান্ধা বাজারের আল আমিন নামে একটি ওয়ার্কশপের সামনে থেকে মর্টারশেলটি উদ্ধার করা হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ। পরে সেনাবাহিনীর বম্ব ডিসপোজাল টিমকে মৌখিকভাবে জানানো হয়।

প্রাথমিকভাবে পুলিশের ধারণা, ভারত ও ভুটান থেকে পাথরের সঙ্গে আসতে পারে মর্টারশেলটি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দুপুরে এক নারী শ্রমিক পাথরের একটি সাইটে পরিত্যক্ত অবস্থায় মর্টারশেলটি কুড়িয়ে পান। পরে সেটি লোহা মনে করে আল আমিন ওয়ার্কশপের সামনে এক ভাঙারির দোকানে ১৫০ টাকায় বিক্রি করেন।

পরে লোকজন মর্টারশেল বলে চিনতে পেরে স্থানীয় ইউপি সদস্যকে জানালে ইউপি সদস্য বিজিবি ও থানা পুলিশকে খবর দেয়।

এ বিষয়ে বাংলাবান্ধা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ১ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য মো. বুলবুল গণমাধ্যমকে বলেন, ‘মরিচা ধরা মর্টারশেলটি সম্ভবত বাংলাবান্ধা স্থলবন্দর দিয়ে ভারত থেকে আমদানি করা পাথরের সঙ্গে এসেছে। পরে সেটি কোনো পাথরের স্তূপের পাশে হয়তো পড়ে ছিল। সেখান থেকে বস্তুটিকে এক নারী কুড়িয়ে পেয়ে লোহার দণ্ড ভেবে একটি ভাঙারি দোকানে ১৫০ টাকায় বিক্রি করেন। পরে স্থানীয় দোকানদাররা সেটিকে বোমা (মর্টার শেল) বললে ওই নারী ফেলে রেখে ভয়ে পালিয়ে যান। পরে আর ওই নারীকে খুঁজে পাওয়া যায়নি।’

তেঁতুলিয়া মডেল থানার ওসি সুজয় কুমার রায় বলেন, ‘বিষয়টি সেনাবাহিনীর বম্ব ডিসপোজাল ইউনিটকে জানানো হয়েছে। তাদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মর্টারশেলটির বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’


পিএনএস/আনোয়ার

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন