জমি নিয়ে বিরোধ: ভাতিজার হাতে চাচা খুন

  10-07-2024 10:49AM

পিএনএস ডেস্ক: নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে দুই ভাইয়ের ঝগড়া মীমাংসা করতে গিয়ে ভাতিজার হাতে আপন চাচা নাসির উদ্দীন (৫২) নিহত হয়েছেন।

শুক্রবার বিকেলে আহত হলেও মঙ্গলবার (৯ জুলাই) দুপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

নিহত নাসির উদ্দীন উপজেলার সনমান্দি ইউনিয়নের পূর্ব সনমান্দি এলাকার মৃত কফিল উদ্দীনের ছেলে।

এ বিষেয়ে নিহতের ভাতিজা নাঈম বলেন, ‘গত ৫ জুলাই শুক্রবার বিকেল ৩টার দিকে আমার বাবা জয়নাল আবেদিন একটি রান্নাঘর নির্মাণের কাজ করছিলেন। এ সময় আমার বড় চাচা আব্দুর রব বাধা দেয়। আমার বাবা ও বড় চাচার মধ্যে বাগবিতণ্ডার একপর্যায়ে আমার চাচাতো ভাই কাশেম ও হাসান ঘর থেকে গ্যাসের পাইপ ও লোহার রড নিয়ে আমার বাবা জয়নাল আবেদিনকে পিটিয়ে আহত করেন। এমন সময় আমার আরেক চাচা নাসির উদ্দীন আমাদের ডাক-চিৎকার শুনে এগিয়ে আসলে তার ওপরও অতর্কিত হামলা চালানো হয়। কাশেমের হাতে থাকা গ্যাসের পাইপ দিয়ে আমার চাচা নাসির উদ্দীনের মাথায় আঘাত করা হয়। এলোপাতাড়ি পিটিয়ে তাকে রক্তাক্ত জখম করা হয়। এ সময় তাকে বাঁচাতে আমার চাচি আবেদা বেগম এগিয়ে আসলে তাকেও রড দিয়ে মাথায় আঘাত করে রক্তাক্ত জখম করা হয়। এমন সময় আমার মা জায়েদা বেগম চাচিকে বাঁচাতে গেলে হাসান লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে আহত করে।’

ভাতিজা নাঈম আরও বলেন, ‘পরবর্তীতে আমাদের ডাক-চিৎকার শুনে এলাকাবাসী এসে আহতদের উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে রোগীদের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার দুপুর আড়াইটার দিকে আমার চাচা নাসির উদ্দীনের মৃত্যু হয়।’

জানা যায়, এর আগে রোববার মারামারির ঘটনায় জয়নাল আবেদিনের স্ত্রী জায়েদা বেগম বাদী হয়ে সোনারগাঁ থানায় একটি হত্যা চেষ্টা মামলা দায়ের করেছেন।

সোনারগাঁ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস এম কামরুজ্জামান বলেন, ‘জমি সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে দুই ভাইয়ের ঝগড়া মেটাতে গিয়ে নাসির উদ্দীন নামে এক ভাই আহত হয়েছিলেন। পরবর্তীতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান। এ ঘটনায় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

পিএনএস/রাশেদুল আলম

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন