স্বাস্থ্যকথা

করোনামুক্ত হলেও ফুসফুসে থাকছে ক্ষত!

  

পিএনএস ডেস্ক: করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পর চিকিৎসায় সুস্থ হয়ে ওঠলেও অনেক রোগীর ফুসফুস স্থায়ীভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয় বলে জানিয়েছেন যুক্তরাজ্যের গবেষকরা। ফুসফুসের টিস্যুর এই ক্ষতিগ্রস্ত হওয়াটা পালমোনারি ফাইব্রোসিস নামে পরিচিত। এই ক্ষতি আর সারানো যায় না। উপসর্গগুলোর মধ্যে থাকে শ্বাসকষ্ট, কাশি ও ক্লান্তি।যুক্তরাজ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়ে গুরুতর অসুস্থ হওয়ার পর যারা সেরে উঠেছেন, তাদের হাসপাতালে যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে ফুসফুস চিরকালের জন্য ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে কি না, তা পরীক্ষা করার জন্য। দেশটির

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে খাদ্যতালিকায় রাখুন এগুলো

  

পিএনএস ডেস্ক : মহামারি করোনাভাইরাসের এই সময়ে সবারই কমবেশি চিন্তা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা নিয়ে। বিশেষজ্ঞ ও চিকিৎসকরাও বারবার বলছেন, ব্যক্তিগত সচেতনতা গড়ে তোলার পাশাপাশি শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে। ভিটামিন সি’র পাশাপাশি জিঙ্ক রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা জোরদার করতে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। খাদ্যতালিকায় জিঙ্কযুক্ত খাবার কম থাকলে, কোষের কার্যকারিতা কমে গিয়ে প্রোটিন তৈরিতে ব্যাঘাত ঘটায়। তাই নিয়মিত খাবারের তালিকায় অবশ্যই জিঙ্কযুক্ত খাবার রাখা জরুরি।মাংসগরু ও মুরগির মাংস দুটোতেই জিঙ্ক রয়েছে। তবে চর্বির

করোনা সুরক্ষায় ফুসফুস ভালো রাখে যেসব খাবার

  

পিএনএস ডেস্ক: প্রাণঘাতি করোনার আক্রমণে মানবদেহে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ হয় ফুসফুস। ভাইরাসটি মানুষের ফুসফুসের টিস্যুকে ধ্বংস করে। এতে শ্বাসতন্ত্রে তৈরি হয় প্রদাহ, বাড়তে থাকে শ্বাসকষ্ট। করোনাকালে তাই ফুসফুসকে সবল ও সক্রিয় রাখার প্রতি নজর দেয়া জরুরি।ধূমপান না করা, ব্যায়াম করা, বায়ুদূষণ এড়িয়ে যাওয়া ইত্যাদি ফসুফুসকে সুরক্ষিত রাখতে সাহায্য করে।পাশপাশি ফুসফুসকে সুস্থ রাখার ভালো উপায় হচ্ছে নিয়মিত শরীরচর্চা করা ও স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়া। স্বাস্থ্যকর খাবার অসুস্থতা থেকে সুরক্ষিত রাখে ও জীবনের আয়ু

কৃমির যন্ত্রণায় ভুগছেন? সহজেই মুক্তি মিলবে আট ঘরোয়া উপায়ে

  

পিএনএস ডেস্ক: অনেকেই কৃমির যন্ত্রণায় অতিষ্ঠ হয়ে থাকেন। কৃমি এমন একটি বিরক্তিকর জীব যা মানুষের দেহে বাস করে। এরা শরীর থেকেই খাদ্য গ্রহণ করে বেঁচে থাকে এবং শরীরের ভেতরেই বংশ বৃদ্ধি করে।মূলত নোংরা পরিবেশ, অনিরাপদ পানি পান, অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস, খালি পায়ে হাঁটা কৃমি সংক্রমণের মূল কারণ। হঠাৎ হঠাৎ পেটে ব্যথা বা মাথার যন্ত্রণা, সারাদিন শরীরে অস্বস্তি বোধ হওয়া ইত্যাদি কৃমি হওয়ার লক্ষণ। কৃমি থেকে মুক্তি পেতে ওষুধ নয়, কিছু ঘরোয়া পদ্ধতিই যথেষ্ট। চলুন জেনে নেয়া যাক সেই আট প্রাকৃতিক উপাদান সম্পর্কে,

করোনার নতুন উপসর্গ স্ট্রোক!

  

পিএনএস ডেস্ক: বিশ্বব্যাপী তাণ্ডব চালাচ্ছে এক মহামারি। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন প্রায় সাড়ে চার লাখ মানুষ। দিন দিন প্রায় লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। করোনার উপসর্গের মধ্যে রয়েছে জ্বর, ঠাণ্ডা, কাশি, গলা ব্যথা। এগুলো সাধারণ ফ্লুয়ের মতোই। তবে দিন দিন নতুন নতুন উপসর্গ পাচ্ছেন চিকিৎসকরা। আইসিএমআরের সাম্প্রতিক সমীক্ষা বলছে, করোনা আঘাত হানতে পারে কেন্দ্রীয় স্নায়ুতন্ত্রেও। যার ফলে, স্বাদ-গন্ধ ভুলতে পারেন মানুষ। তবে আমেরিকার নর্থ ওয়েস্টার্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে

গলাব্যথায় ভুগছেন? মুহূর্তেই মুক্তি মিলবে সহজ এই উপায়ে

  

পিএনএস ডেস্ক: করোনার আতঙ্কে রয়েছে সারা বিশ্ব। এর থেকে রেহাই পেতে নানা রকম উপায়ও মেনে চলছে। তবে করোনার সঙ্গে সঙ্গে এখন চলছে বর্ষাও। তাই ঋতু পরিবর্তনের এই সময় ঠাণ্ডা, জ্বর, কাশি, গলাব্যথা লেগেই থাকে। এসব লক্ষণ করোনায় আক্রান্ত হলেও দেখা দেয়। তাই সবাই আতংকিত থাকেন।তবে আবহাওয়ার পরিবর্তের জেরে এসব সমস্যা দেখা দিলে আতংকিত হবেন না। বরং এই সমস্যা সমাধানে সামান্য কিছু ঘরোয়া পদ্ধতিই মেনে চলুন। যা আপনাকে মুহূর্তেই মুক্তি দেবে। এ সময় বেশি প্রভাব পড়ে গলায়। তাই লকডাউনে এমন কিছু উপাদান সঙ্গে মজুত রাখুন

সেই হাদিস অনুযায়ী ওষুধ বানিয়ে করোনা চিকিৎসায় অবিশ্বাস্য সাফল্যের দাবি সৌদিতে!

  

পিএনএস ডেস্ক: প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে গোটা বিশ্ব। এই ভাইরাসের বিষাক্ত ছোবলে যখন দিশেহারা হয়ে পড়েছে বিশ্বের আধুনিক চিকিৎসা বিজ্ঞান, তখন হাদিসে বর্ণিত উপায়ে ওষুধ বানিয়ে ব্যাপক সাফল্য পাওয়ার দাবি করেছে সৌদি আরবের গবেষক দল। সহীহ বুখারী শরিফের ৫৩৬৩ নম্বর হাদিসে হযরত আয়েশা (রা) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন- রাসুল (সা.) বলেছেন, “কালিজিরা সকল রোগের ওষুধ কেবল বিষ ছাড়া। ” তিনি (আয়েশা) বললেন ‘বিষ’ কী? জবাবে নবী (সা.) বললেন, “মৃত্যু”। হাদিসের এই বাণীর সঙ্গে সঙ্গতি রেখে ‘তাইবুভিড’

‘মায়ের বুকের দুধ থেকে করোনা ছড়ানোর নজির নেই’

  

পিএনএস ডেস্ক: করোনাভাইরাসে আক্রান্ত মায়ের বুকের দুধ থেকে শিশুরা সংক্রমিত হয় না বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।সংস্থাটির প্রধান তেদ্রোস আধানম গেব্রিয়াসুস শুক্রবার জানান, তারা খুব সতর্কতার সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে গবেষণা করেছেন।‘আমরা জানি কভিড-১৯ রোগে শিশুদের ঝুঁকি কম। কিন্তু অনেক রোগ আছে যেগুলো তাদের জন্য উচ্চ ঝুঁকির কারণ, মায়ের বুকের দুধ এসব প্রতিরোধ করতে পারে।’‘প্রাপ্য সব প্রমাণের ভিত্তিতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শ হল কোভিড-১৯ সংক্রমণের ঝুঁকির চেয়ে বুকের দুধ পান

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে পানিতে যা মিশিয়ে তৈরি করবেন ভেষজ

  

পিএনএস ডেস্ক: আমরা সবাই জানি- পানির অপর নাম জীবন। শুধু তাই নয়, সুস্থ জীবন যাপনেও পানির বিকল্প নেই। তাই দিনে কম করে হলেও আড়াই থেকে তিন লিটার পানি পান করুন। সেই সঙ্গে প্রতিদিন ব্যায়ামও করতে হবে। পানির সঙ্গে এমন কিছু উপাদান মেশাতে হবে, যা একইসঙ্গে সুস্বাদু ও স্বাস্থ্যকর। প্রকৃতিতে এমন অনেক উপাদান আছে যাতে স্বাদ-গন্ধের পাশাপাশি আছে পুষ্টি জোগায় ও রোগ সারানোর ক্ষমতা রাখে। সেসব মিশিয়ে পান করলে আর বিস্বাদ লাগবে না। পাশাপাশি বাড়বে প্রতিরোধ ক্ষমতাও। সঠিক পদ্ধতিতে খেলে সুস্বাস্থ্যের পাশাপাশি রোগ

রক্তের গ্রুপভেদে করোনা সংক্রমণের হার কম-বেশি হয়!

  

পিএনএস ডেস্ক: প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত গোটা বিশ্ব। এই ভাইরাসের বিষাক্ত ছোবরে ইতোমধ্যে বিশ্বের ২১৩টি দেশ ও অঞ্চল আক্রান্ত হয়েছে। এখন পর্যন্ত (বুধবার সকাল সাড়ে ১০টা) বিশ্বব্যাপী ভাইরাসটিতে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭৩ লাখ ২৩ হাজার ৭৬১ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ১৩ হাজার ৭৩১ জনের।করোনা ভাইরাসের এই ধ্বংসযজ্ঞের মাঝে প্রকাশ্যে এক ধরনের চাঞ্চল্যকর তথ্য। রক্তের গ্রুপভেদে করোনাভাইরাসের সংক্রমণের হার কম-বেশি হয় বলে প্রাথমিকভাবে প্রমাণ পাওয়ার দাবি করেছেন বিজ্ঞানীরা। বিষয়টি নিয়ে সেই