চিত্র-বিচিত্র

গিটার বাজিয়ে মস্তিস্কের অস্ত্রোপচার

  

পিএনএস ডেস্ক : মস্তিস্কে তখন চলছে কঠিন অস্ত্রোপচার। শেষ হবে সাত ঘণ্টা পর। এই ম্যারাথন অপারেশনের গোটা সময়ই সজ্ঞানে গিটার বাজিয়ে গেলেন রোগী। অদ্ভুত এই ঘটনা ঘটেছে ভারতের বেঙ্গালুরুর একটি হাসপাতালে।৩২ বছরের অভিষেক প্রসাদ পেশায় সুরকার। সঙ্গীতচর্চা করবেন বলে কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার পদের চাকরি ছেড়ে দিয়েছেন। তার সেই সুর সঙ্গী হলো অপারেশন থিয়েটারের টেবিলেও।জানা গেছে, ওই অভিষেক ‘ডিসটোনিয়া’ নামে একধরনের রোগে আক্রান্ত। তার হাতের তিনটি আঙুল কর্মক্ষমতা হারানোর পর অস্ত্রোপচারের পরামর্শ দেন

তোতা পাখিতে ধরা পরলো খুনি স্ত্রী!

  

পিএনএস ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের মিশিগানে তোতা পাখির সাক্ষ্যে স্বামীকে হত্যায় দণ্ড হয়েছে এক স্ত্রীর। গেলেনা ডুরাম ২০১৫ সালে তার স্বামী মার্টিনকে ওই পাখিটির সামনে গুলি করে হত্যা করেছিলেন।পরে তিনি একই বন্দুকের গুলিতে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন কিন্তু ব্যর্থ হন। তোতা পাখিটি আফ্রিকান প্রজাতির। তার নাম 'বাড'।যখন গেলেনা তার স্বামী মার্টিনকে গুলি করতে উদ্যত হয়েছিল, তখন মার্টিন চিৎকার করে বলেছিলেন 'ডোন্ট শুট'। সেই কথাটি তোতা পাখিটি হত্যাকাণ্ডের রাতে পুনরাবৃত্তি করতে পেরেছিল। এ কারণে সাক্ষী হিসেবে

জন্মদিনে ছাত্রের সঙ্গে যৌনতায় মাতলেন এমিলি

  

পিএনএস ডেস্ক : ভালবাসা-প্রেম-যৌনতা কখন যে কার উপর ভর করে তা কে বলতে পারে?সেই ফাঁদেই পা দিয়েছিল বছর সাতাশের এমিলি রফিং৷ নেব্রাস্কা সিটি মিডল স্কুলের ইংরাজি পড়ান সে৷ছাত্র পড়ান পর্যন্ত ঠিক ছিল৷ কিন্তু এরপরেই ঘটে বিপত্তি, ১৬ বছরের ছাত্রের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন এমিলি৷ আর কি, আদালতের রায়ে এখন ৯০ দিনের হাজতবাস নিশ্চিত তার৷তবে ভালো ব্যবহারের জন্য তা কমে ৫৩ দিনও হতে পারে৷ঘটনার সূত্রপাত ছাত্রটির ১৬তম জন্মদিনে৷ সেদিনই ছাত্রের সঙ্গে যৌন উত্তেজনায় মেতে উঠেছিল এমিলি৷ কিন্তু গোপন

পাঁচ স্ত্রীর গণধর্ষণে মৃত স্বামী

  

পিএনএস ডেস্ক : বর্তমান সমাজে নারী নির্যাতনের ঘটনা যখন তুঙ্গে তখন নির্যাতিত হচ্ছেন পুরুষরাও৷ এতদিন মহিলারাই কেবল গণধর্ষণের শিকার হতেন৷ এবার গণধর্ষণের শিকার হলেন এক পুরুষ৷ চরম শারীরিক নির্যাতনের ফলে মৃত্যুবরণ করতে হল তাকে৷নাইজেরিয়াতেই ঘটেছে এমন ঘটনা৷ এক ব্যবসায়ী তার পাঁচ বউয়ের ধর্ষণে মৃত্যবরণ করলেন৷ মৃত ব্যক্তির নাম ইউরোকো ওনোজো৷ তার মোট ছয় স্ত্রী৷ সারারাত পার্টিতে ব্যস্ত থাকার পর ভোর রাতে বাড়ি ফিরেছিলেন ওনোজো৷ অন্যদিকে সারারাত তার স্ত্রীয়েরা তার সঙ্গ পেতে প্রহর গুণছিলেন৷ ভোররাতে

এ কেমন মা-ছেলে!

  

পিএনএস ডেস্ক: নাম লিউ ইয়েলিন। শরীরে গ্ল্যামার যেন চুঁইয়ে পড়ছে তার। দেখে মনে হবে বয়স সর্বোচ্চ ২২-২৩ বছর। কিন্তু বাস্তবটা এর থেকে অনেকটাই আলাদা। জীবনশক্তিতে ভরপুর এই ‘প্রৌঢ়া’কে দেখে সত্যিই বোঝার উপায় নেই তার আসল বয়স কত। এমনকী না বলে দিলে কেউ ঘুণাক্ষরেও বুঝতে পারবে না, ৫০ বছর বয়সী এই নারীর ২২ বছরের একটি ছেলেও রয়েছে!চিনের হেনান প্রদেশের জিনইয়াঙ্গে বসবাস করা এই নারীর। ছোট থেকেই ফিটনেস নিয়ে সচেতন লিউ। তাই যোগ ব্যয়াম থেকে শুরু করে সুইমিং-সুস্থ থাকতে দিনের বেশির ভাগ সময়টাই শরীরচর্চা নিয়ে ব্যস্ত

গার্লফ্রেন্ড বালিশ!

  

পিএনএস ডেস্ক : গার্লফ্রেন্ডের নরম কোলে মাথা রেখে ঘুমানোর ভার্চুয়াল তৃপ্তি পেতে জাপানিরা গার্লফ্রেন্ড পিলো বা বালিশের প্রচলন ঘটিয়েছিল। হালে এই বালিশের পালে জনপ্রিয়তার হাওয়া লেগেছে বেশ জোরে।এটা তুলা বা পালক ভরা বালিশ নয়। পলিইউরোথিন দিয়ে তৈরি এক ধরনের হালকা কুশন। ২০০৫ সালে জাপানের ট্রান করপোরোশন এই বালিশ প্রথম বাজারজাত করে। বলা হয়েছিল, যারা কুমার বা একাকী থাকেন তাদের জন্য এই বালিশ আদর্শ বিবেচিত হতে পারে। কিন্তু হালে দেখা যাচ্ছে, বিবাহিতই বলুন আর অবিবাহিতই বলুন, জাপানিরা গার্লফ্রেন্ড

মশা মারার শ্রেষ্ঠ উপায়

  

পিএনএস ডেস্ক: সারা দেশে এখন আতঙ্কের নাম চিকুনগুনিয়া। মশাবাহিত রোগ চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে মানুষ মারা না গেলেও প্রচণ্ড ব্যথা এবং যন্ত্রণায় ঝুঁকিতে রয়েছেন বৃদ্ধ এবং ক্রনিক রোগীরা। অন্যান্য জ্বরের মতোই খুব সাধারণ অসুখ এটি। চিকুনগুনিয়া একটি মশাবাহিত আলফা ভাইরাসজনিত রোগ। এ রোগে জটিলতার কারণে ৫ দিন থেকে ১২ মাস পর্যন্ত ভোগান্তি হতে পারে এবং সাধারণ কাজকর্মে অসুবিধা হতে পারে, এমনকি চলাফেরা করতেও সমস্যা হতে পারে। এমনকি জটিল আকারে দেখা দিতে পারে, তাই মোকাবিলা করতে প্রয়োজন কিছু সমন্বিত

দাঁতের রেকর্ডে গড়লেন এই যুবক

  

পিএনএস ডেস্ক: দাঁতের মহিমাই জগৎসভায় চিনিয়ে দিল ১৮ বছরের ভারতীয় যুবক উরভিল প্যাটেলকে। সবচেয়ে বড় দাঁতের অধিকারী হিসেবে তাঁর স্থান হল গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস-এ।কিন্তু এই দাঁত নিয়েই বিপদে পড়েছিলেন উরভিল। অকারণেই যখন তখন বেরিয়ে আসত লম্বা দাঁতটি। বিশেষ করে মন খুলে হাসতে গেলে। তাই বাইরের লোকের সামনে হাসাই প্রায় বন্ধ করে দিয়েছিলেন উরভিল। কিন্তু হাসি নামক বস্তুটি চাপা সম্ভব হয় না। সৌজন্য তো কিছু ক্ষেত্রে দেখাতেই হয়। সেখানেই বেশ অস্বস্তিতে পড়তে হত উরভিলকে। তাই ভারতীয় যুবক ঠিক করেন অযাচিত

ভারতে পাওয়া গেল ‘ভিভিআইপি’ গাছ!

  

পিএনএস ডেস্ক: ভারতের মধ্যপ্রদেশের সালমাতপুরে বছরে ১২ লাখ রুপি খরচে একটি গাছ রক্ষণাবেক্ষণ করা হচ্ছে। জানা গেছে, এই ‘পিপল ট্রি’ হল ভারতের প্রথম ‘ভিভিআইপি’ গাছ। ইউনেসকো ঘোষিত বিশ্ব ঐতিহ্যের অংশ সানচি বৌদ্ধ কমপ্লেক্স থেকে প্রায় পাঁচ কিলোমিটার দূরে বেড়ে উঠছে গাছটি। এ ব্যাপারে উপবিভাগীয় ম্যাজিস্ট্রেট বরুণ আওয়াস্তি বলেন, গাছের নিরাপত্তা ও পানি দেয়ার জন্য চারজন রক্ষী দেয়া হয়েছে। তাদেরই একজন পরমেশ্বর তিওয়ারি বলেন, ২০১২ সালের সেপ্টেম্বর থেকে দায়িত্ব পালন করছেন তিনি। জানা গেছে, বছর পাঁচেক আগে

মৃত মায়ের গর্ভে জমজ শিশুর জন্ম!

  

পিএনএস ডেস্ক: গত বছরের অক্টোবরে সেরিব্রাল হেমারেজ আক্রান্ত হয়ে মস্তিষ্কের মৃত্যু হয় ফ্রাঙ্কলিনের। সেই সময় গর্ভের যমজ সন্তানের বয়স মাত্র নয় সপ্তাহ (দুই মাস)। স্ত্রীকে হারালেও ফ্রাঙ্কলিনের স্বামী মুরিয়েল পেডিলহা হার মানতে চাননি। দুই সন্তান তখন মায়ের গর্ভে।মা হতে চলা মৃত স্ত্রীকে কৃত্রিমভাবে বাঁচিয়ে রাখতে চিকিৎসকদের অনুরোধ করেন ২৪ বছর বয়সী মুরিয়েল। চিকিৎসক ডালটন রিভাবেম-এর দুর্দান্ত ভূমিকায় অসম্ভবকে সম্ভব করা যায়। উল্লেখ্য, এর আগেও পর্তুগালে ১০৭ দিন গর্ভাবস্থায় বাচ্চার জন্মদানে সহায়তা

Developed by Diligent InfoTech