লন্ডনে পাতাল রেল স্টেশনে বিস্ফোরণ

  

পিএনএস ডেস্ক: লন্ডনের দক্ষিণ-পশ্চিমাংশে পাতাল রেলে বিস্ফোরণের খবর আসার পর তদন্তে নেমেছে পুলিশ। সোশ্যাল মিডিয়ায় আসা ছবির বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, ঘটনাস্থলে সাদা রঙের একটি বাস্কেট জ্বলতে দেখা গেছে। তবে বড় ধরনের কোনো ক্ষয়ক্ষতির চিত্র এখনও আসেনি। মুখমণ্ডলে আঘাত পাওয়া অন্তত একজন যাত্রীকে ঘটনাস্থলে দেখা গেছে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন।

স্থানীয় সময় শুক্রবার সকাল সোয়া ৮টার পর ফুলহ্যাম এলাকার ‘পারসনস গ্রিন’ স্টেশনে ওই বিস্ফোরণের পর আতঙ্কিত যাত্রীদের ছুটোছুটি শুরু হয়ে যায়। খবর পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থলে লোক পাঠানোর কথা জানায় লন্ডন অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিস।

বিবিসি অনলাইনের খবরে বলা হয়, লন্ডনের দক্ষিণ পশ্চিমে ফুলহাম এলাকায় পারসনস গ্রিন স্টেশনে আজ এ বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া একটি ছবিতে দেখা যায়, একটি ব্যাগের ভেতরে থাকা সাদা একটি বালতিতে বিস্ফোরণ ঘটেছে। তবে এতে যে খুব বেশি ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা বোঝা যাচ্ছে না। এই বিস্ফোরণে কয়েকজন যাত্রীর মুখমণ্ডলে ক্ষত হয়েছে।

তবে ওই বিস্ফোরণের পর পর আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। যাত্রীরা পারসনস গ্রিন স্টেশনে ট্রেন থেকে নেমে যেতে থাকেন। ঘটনার পর পর স্টেশনে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উপস্থিত হয়। এ সময় স্টেশনে অপেক্ষারত যাত্রীদের আতঙ্কিত হয়ে স্টেশন চত্বর ছেড়ে যেতে দেখা যায়।

বিবিসি লন্ডনের প্রেজেন্টার রিজ লতিফ কাজে যাওয়ার পথে ওই স্টেশনেই ছিলেন ঘটনার সময়। তিনি জানান, ট্রেন থামা মাত্র বিস্ফোরণের মত একটা শব্দ হয় এবং তারপর যাত্রীরা আতঙ্কে হুড়মুড় করে ট্রেন থেকে নামতে শুরু শুরু করে। দ্রুত সরে যাওয়ার চেষ্টায় ধাক্কাধাক্কিতে অনেকে আঘাতও পান।

বিবিসির নিউজ প্রেজেন্টার সোফি রাওয়র্থ জানান, তিনি এক নারীকে স্ট্রেচারে করে সরিয়ে নিতে দেখেছেন, যার পা ও মুখে পোড়া ক্ষত ছিল।

এদিকে আরেক প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে রয়টার্স লিখেছে, বিস্ফোরণের মত শব্দের পর ট্রেনের একটি বগিতে আগুন দেখা গেলে হুড়োহুড়ি শুরু হয়। মানুষ যে যেভাবে পারে নেমে যাওয়ার চেষ্টা করে। ফলে ভিড়ের চাপে চ্যাপ্ট হওয়ার মত পরিস্থিতি তৈরি হয়।

লন্ডন অ্যাম্বুলেন্স সার্ভিসের নাতাশা উইলস বলেন, পারসনস গ্রিন স্টেশনে তাদের চিকিৎসাকর্মীরা কাজ শুরু করেছে। আহতরা কে কতটা আঘাত পেয়েছেন তা আগে বোঝার চেষ্টা চলছে। এ বিষয়ে পরে বিস্তারিত তথ্য জানানো সম্ভব হবে।


পিএনএস/আলআমীন

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech