সরকার একটা ব্যর্থ বাংলাদেশ তৈরি করছে : ফখরুল

  

পিএনএস ডেস্ক: বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, দেশে কিছুই নেই। বর্তমানে দেশে গণতন্ত্র, সুশাসন, বিচারব্যবস্থা, মত প্রকাশের স্বাধীনতা- এর কোনটাই নেই। পত্রিকা খুললেই গুম, খুন, হত্যা, ধর্ষণ, নির্যাতন এসবের খবর পাওয়া যায়। এসবই করছে যুবলীগ, ছাত্রলীগ, আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। এই সরকার একটি ব্যর্থ বাংলাদেশ তৈরি করছে। বর্তমান সরকার একটি ব্যর্থ বাংলাদেশ তৈরি করছে।

শুক্রবার (৬ ডিসেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি, তারেক রহমানের অবৈধ সাজা বাতিল ও স্বৈরাচার পতন দিবস উপলক্ষে ৯০-এর ডাকসু সর্বদলীয় ছাত্র ঐক্য পরিষদ আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

ডাকসুর সাবেক ভিপি আমানউল্লাহ আমানের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন প্রমুখ।

মির্জা ফখরুল বলেন, বর্তমানে দেশে গণতন্ত্র নেই। অস্ত্রের জোরে ক্ষমতা দখল করে গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে যে স্বৈরশাসন চালানো হয়েছিল। দীর্ঘ নয় বছর সংগ্রাম করে, সেই স্বৈরশাসন ভেঙে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছিলেন গণতন্ত্রের মা বেগম খালেদা জিয়া। আজ তাকেই বন্দী করে রাখা হয়েছে। আজকের সরকার স্বৈরশাসক এরশাদের সাথে আঁতাত করে আছেন।

বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে বিএনপি মহাসচিব বলেন, বর্তমান সরকার জানে, বেগম খালেদা জিয়া মুক্তি পেলে এই অবৈধ সরকার ক্ষমতায় থাকতে পারবে না। তাই তাকে মুক্তি দিচ্ছে না। বেগম খালেদা জিয়া প্রায় পঙ্গুত্বের আশঙ্কার মধ্যে রয়েছেন। ডাক্তাররা রিপোর্টে দিয়েছিলেন- বেগম জিয়ার শারীরিক অবস্থা অনেক খারাপ, তাকে বিদেশে উন্নত চিকিৎসা দিতে হবে। এই সরকার চক্রান্ত করে সেই রিপোর্ট বাতিল করার জন্য পরবর্তী দিন ধার্য করেছে। আমরা তীব্র আন্দোলন করে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি, গণতন্ত্র ও সুশাসন প্রতিষ্ঠা করব।

সভাপতির বক্তব্যে আমানউল্লাহ আমান বলেন, আজ গণতন্ত্র মুক্তি দিবসে গণতন্ত্রের মা, আমাদের নেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে বাইরে থাকার কথা। কিন্তু আজকে তিনিই কারাগারে বন্দি আছেন। আপোষহীন নেত্রী বলেই আজ তাকে কারাগারে থাকতে হচ্ছে। আমরা অবিলম্বে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও দেশনায়ক তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দায়ের করা সকল মিথ্যা মামলার প্রত্যাহার চাই।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech