‘ইরান মার্কিন ও ব্রিটিশ টিকার পরীক্ষাগার নয়’

  


পিএনএস ডেস্ক: ইরানের বিচার বিভাগের প্রধান ইব্রাহিম রায়িসি বলেছেন, তার দেশ আমেরিকা ও ব্রিটেনের করোনাভ্যাকসিনের পরীক্ষাগার নয়। ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহিল উজমা খামেনেয়ী ইঙ্গো-মার্কিন টিকা আমদানি নিষিদ্ধ করে যে বক্তব্য দিয়েছেন তার প্রতি পূর্ণ সমর্থন ঘোষণা করে রায়িসি আরও বলেছেন, দেশের জনগণের জীবন রক্ষার স্বার্থে সর্বোচ্চ নেতা এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

ইরানের বিচার বিভাগের প্রধান সোমবার তেহরানে সিনিয়র বিচারপতিদের এক বৈঠকে বলেন, যারা মানুষের জীবন রক্ষার চেয়ে নিজেদের স্বার্থ চরিতার্থ করাকে বেশি প্রাধান্য দেয় তাদের টিকা থেকে ইরানি জনগণকে সুরক্ষিত রাখতে হবে।

ইরানে করোনাভ্যাকসিন উৎপাদনের ভূয়সী প্রশংসা করে ইব্রাহিম রায়িসি বলেন, ‘জাতীয় আত্মবিশ্বাস’ থেকে ইরানি তরুণ বিজ্ঞানীরা এ টিকা আবিষ্কার করেছেন এবং এই আত্মবিশ্বাস নয়া ইসলামি সভ্যতার সোপান হিসেবে কাজ করবে।

ইরানের কোনও কোনও মহল পশ্চিমা টিকা আমদানির পক্ষে যে জিগির তুলেছে তার তীব্র সমালোচনা করে বিচার বিভাগের প্রধান বলেন, কেউ কেউ ‘আত্ম-অপমান ভাইরাস’-এ আক্রান্ত যা করোনাভাইরাসের চেয়ে বেশি বিপজ্জনক না হলেও কোনও অংশ কম নয়।

আয়াতুল্লাহিল উজমা খামেনেয়ী গত শুক্রবার টেলিভিশনে জাতির উদ্দেশে প্রচারিত এক ভাষণে ইরানে মার্কিন বা ব্রিটিশ টিকা আমদানি নিষিদ্ধ ঘোষণা করে বলেন, যেসব দেশে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সর্বোচ্চ সংখ্যায় মানুষ মারা যাচ্ছে তাদের টিকা আমদানি করা সুস্থ বিবেকসম্পন্ন মানুষের কাজ নয়। তিনি ওই দুই সাম্রাজ্যবাদী ও উপনিবেশবাদী দেশের টিকার ওপর আস্থা রাখা যায় না বলেও মন্তব্য করেন।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন