জীবন রক্ষার্থে গুলি চালাতে বাধ্য হয় বিজিবি

  

পিএনএস ডেস্ক : ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুরে জব্দকৃত গরু ছিনিয়ে নেওয়ার সময় চোরাকারবারি ও বিজিবি'র সদস্যদের মাঝে সংঘর্ষে হতাহতের ঘটনায় সংবাদ সম্মেলন করেছে ৫০ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন। মঙ্গলবার (১২ ফেব্রুয়ারি) রাত সাড়ে ৯টায় ব্যাটালিয়নের ক্যান্টিনে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

লিখিত বক্তব্য পড়ে শোনান ৫০ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল তুহিন মো. মাসুদ। তিনি বলেন, চোরাকারবারিরা পরিকল্পিতভাবে জব্দকৃত গরু বিজিবির কাছ থেকে ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে। তারা ধারালো অস্ত্র নিয়ে বিজিবি সদস্যদের ওপর হামলা করলে নিজেদের জীবন রক্ষার্থে গুলি চালাতে বাধ্য হয় বিজিবি। বিজিবির ছোঁড়া গুলিতে তিন চোরাকারবারি নিহত ও বিজিবির পাঁচ সদস্য আহত হয়। এ ঘটনায় ইন্ধনদাতাদের খুঁজে বের করে আইনের আওতায় এনে বিচারের ব্যবস্থা করা হবে।

এদিকে এ ঘটনায় হরিপুর বেতনা সীমান্তের বহরমপুর এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে বিজিবি সদস্যদের বিচার দাবি করেছেন নিহতদের পরিবার ও এলাকাবাসী।

অপরদিকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেটকে প্রধান করে সাত সদস্যবিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন জেলা প্রশাসক ড. কামরুজ্জামান সেলিম।

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার বেলা ১১টায় হরিপুর উপজেলায় বিজিবির জব্দকৃত গরু ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনায় চোরাকারবারিদের সঙ্গে বিজিবির সংর্ঘষে তিনজন নিহত ও ১৬ জন সাধারণ মানুষ গুলিবিদ্ধ হয়। এ সময় পাঁচজন বিজিবি সদস্য আহত হয়।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech