জাতীয় পার্টির মহাসমাবেশে জড়ো হচ্ছে নেতাকর্মীরা

  

পিএনএস ডেস্ক : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগমুহূর্তে নিজেদের শক্তি ও সামর্থ্য সর্ম্পকে জানান দিতে মহাসমাবেশের আয়োজন করছে প্রধান বিরোধী দল জাতীয় পার্টির নেতৃত্বাধীন সম্মিলিত জাতীয় জোট। এতে অংশ নিতে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে দলটির নেতাকর্মীরা দলে দলে আসছেন। শনিবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বেলা ১১টায় মহাসমাবেশ শুরু হবে।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের সভাপতিত্বে মহাসমাবেশে দলটির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ, কো-চেয়ারম্যান জিএম কাদের, মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদারসহ সম্মিলিত জাতীয় জোটের শীর্ষ নেতারা বক্তব্য দেবেন।

মহাসমাবেশ থেকে জাতীয় নির্বাচনের রোডম্যাপ ঘোষণা, জোট গঠনসহ রাজনৈতিক গুরুত্বপূর্ণ বার্তা দেবেন সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। পাশাপাশি নেতাকর্মীদের নানান দিক-নির্দেশনা দেবেন তিনি।



মহাসমাবেশ সফল করতে এরই মধ্যে সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। জেলা-উপজেলার নেতাকর্মী ও সমর্থকরা ঢাকায় আসা শুরু করেছেন।

জাতীয় পার্টি সূত্রে জানা যায়, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ এবং উত্তর ছাড়াও দোহার, নবাবগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, সোনারগাঁ, নরসিংদী, সাভার, ধামরাই, কালীগঞ্জ, কেরানীগঞ্জ, মানিকগঞ্জসহ ঢাকার আশপাশের এলাকা থেকে বিপুলসংখ্যক নেতাকর্মী মহাসমাবেশে অংশ নেবেন। এ ছাড়াও বরিশাল, রংপুর, সিলেট, চট্টগ্রামসহ দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে বাস, ট্রেন এবং লঞ্চে নেতাকর্মীরা মহাসমাবেশে যোগ দিতে ঢাকায় আসবেন।

মহাসমাবেশ বর্ণাঢ্য করতে নেয়া হয়েছে সব ধরনের প্রস্তুতি। শাহবাগ থেকে প্রেস ক্লাব পর্যন্ত নানা রঙের ব্যানার-ফেস্টুন দিয়ে সাজানো হয়েছে। নগরীর প্রধান প্রধান সড়কে নির্মাণ করা হয়েছে একাধিক তোরণ।

এর আগে, শুক্রবার (১৯ অক্টোবর) দলের কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে নিয়ে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সভামঞ্চ পরিদর্শন করেন জাপা মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার। এ সময় তিনি বলেন, মহাসমাবেশে সারাদেশ থেকে লাখ লাখ জনতা যোগ দেবে। এই সমাবেশ হবে আগামী রাজনীতির টার্নিং পয়েন্ট। এই সমাবেশ থেকে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ দেশবাসীকে নতুন বার্তা দেবেন।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech